Selim Rizvi chowdhury

@rzv123

আধাবুড়ো লোক আমি !
business_center নাম-মাত্র ব্যবসায়ী !!
school মানব সমাজের সকল স্তর থেকে শিক্ষা গ্রহণ [এখনো চলমান ]
location_on গাইবান্ধা
1447942764000  থেকে আমাদের সাথে আছে

Selim Rizvi chowdhury: কৃষকের এই দুঃসময়ে শাইখ সিরাজ কোথায়...?

Selim Rizvi chowdhury: দা দিয়ে সাতক্ষীরা কলারোয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক জি এম তুষারের ডান হাতের চারটি আঙুল কেটে দিয়েছেন তারই সংগঠনের নেতারা

Selim Rizvi chowdhury: কৃষকের হবে লবডঙ্কা চাল আমদানিতে যেমন কৃষকের কপাল পুড়েছে, তেমনি চাল রপ্তানিতেও ব্যবসায়ী চক্র এর সুবিধা পাবে.!!!

Selim Rizvi chowdhury: বিদেশে টাকা পাচারে দক্ষিণ এশিয়ায় দ্বিতীয় অবস্থানে এখন বাংলাদেশ । এক নম্বরে আছে ভারত

Selim Rizvi chowdhury: একটি বেশব্লগ লিখেছে

দেশি জাতের মুরগির উচ্চমূল্য ও উৎপাদন স্বল্পতার কারণে প্রাণিজ আমিষের বড় একটি অংশ পূরণ হচ্ছে ব্রয়লার মুরগি দিয়ে। অল্প সময়ে অধিক মাংস উৎপাদনে ব্রয়লার মুরগিতে ক্ষতিকর অ্যান্টিবায়োটিক কিংবা গ্রোথ প্রোমোটর (বৃদ্ধিবর্ধক পদার্থ) ব্যবহার করেন বহু খামারি। ফলে এই মাংস থেকে মানবদেহে ভারী ধাতু ও ক্ষতিকর পদার্থ প্রবেশের আশঙ্কায় ব্রয়লার মুরগি এড়িয়ে যেতে চাচ্ছেন অনেকেই।
 
কিন্তু ক্ষতিকর কোনো হরমোন ব্যবহার না করে প্লানটেইন নামের এক প্রকার ভেষজ উদ্ভিদ ব্যবহার করেই কম সময়ে উৎপাদন বাড়ানো সম্ভব। চার বছর ধরে এ-সংক্রান্ত গবেষণা করে সফল হয়েছেন ময়মনসিংহে অবস্থিত বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক মোহাম্মদ আল-মামুন।

সোমবার বিশ্ববিদ্যালয়ের শাহজালাল পশুপুষ্টি গবেষণাগারে প্যানেল টেস্টের মাধ্যমে গবেষণায় সফলতার কথা জানালেন তিনি। শুধু উৎপাদন বৃদ্ধি নয়, এ প্রক্রিয়ায় উৎপাদিত মাংসের পুষ্টিগুণ তুলনামূলক বেশি বলে দাবি করেছেন পশুপালন অনুষদের পশুপুষ্টি বিভাগের এই অধ্যাপক।

গবেষক আল-মামুন বলেন, \\\’ক্ষতিকর অ্যান্টিবায়োটিক কিংবা হরমোন উৎপাদন বৃদ্ধি করলেও প্রাণিদেহের রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা মারাত্মকভাবে ব্যাহত করে। এ থেকে উৎপাদিত পশুপণ্য অর্থাৎ মাংস, দুধ কিংবা ডিম গ্রহণের ফলে মানুষের শরীরে হৃদরোগ, ডায়াবেটিস, অটিজমসহ বিভিন্ন ভয়াবহ রোগ দেখা দিতে পারে। উন্নত দেশে এসব হরমোন নিষিদ্ধ হলেও আমাদের দেশে ব্যবহার হয়ে আসছে। ক্ষতিকর অ্যান্টিবায়োটিকের বিকল্প হিসেবে ২০০৪ সালে জাপানে সর্বপ্রথম প্লানটেইন উদ্ভিদের ওপর গবেষণা শুরু করি।\\\’

আল-মামুন আরও বলেন, দীর্ঘ গবেষণায় এর আগে গবাদিপশু (গরু ও ভেড়া) মোটাতাজাকরণে ক্ষতিকর গ্রোথ হরমোনের বিকল্প হিসেবে প্লানটেইন ঘাস ব্যবহারে সফল হই। প্রাণিজ আমিষের অন্যতম ও সহজলভ্য ব্রয়লার মুরগির মাংস গ্রহণে মানুষের অনীহা সৃষ্টির বিষয়টি অনুধাবন করে এ নিয়ে গবেষণা শুরু করি। মজার ব্যাপার হলো, প্লানটেইন ব্যবহারের ফলে উৎপাদন বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ব্রয়লার মাংসের পুষ্টিগুণও বৃদ্ধি পেয়েছে। সাধারণ মাংসের চেয়ে এতে মানবদেহের উপকারী অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট হিসেবে ওমেগা ৩-এর পরিমাণ বেশি পাওয়া গেছে। ওমেগা ৩ একটি ফ্যাটি অ্যাসিড, যা মানবদেহে ক্ষতিকর চর্বির পরিমাণ কমিয়ে হৃদরোগ, স্ট্রোক, ক্যানসার, চোখের ছানি, স্মৃতিভ্রম এবং অল্প বয়সে বুড়িয়ে যাওয়ার প্রবণতা কমিয়ে দেয়।

আল-মামুন বলেন, প্লানটেইন (Plantago lanceolata L.) একটি বহুবর্ষজীবী ঘাসজাতীয় বিরুৎ উদ্ভিদ। ২০১১ সালে বাংলাদেশে প্লানটেইন নিয়ে গবেষণা শুরুর ৩ বছর পর এই উদ্ভিদকে অভিযোজিত ও চাষ-উপযোগী করতে সক্ষম হই। ২০১৭ সালে থেকে আমার নিজ জেলা মানিকগঞ্জে কৃষকপর্যায়ে প্লানটেইন ঘাস উৎপাদন ও খামারিপর্যায়ে গবাদিপশুর খাদ্য হিসেবে এটি ব্যবহৃত হয়ে আসছে। প্রতি একর জমিতে ১২ মেট্রিক টন ফলন পাওয়া যায়, যা দিয়ে ৪ লাখ ২০ হাজার ব্রয়লার মুরগি উৎপাদন সম্ভব।

উৎপাদন খরচ সম্পর্কে গবেষক বলেন, ব্রয়লার মুরগিকে সতেজ ও শুকনো পাতা এবং পাতার পাউডার খাওয়ানো যায়। ২৮ দিন বয়সের একটি ব্রয়লার মুরগিতে অ্যান্টিবায়োটিক বা হরমোন বাবদ যেখানে ৫ টাকা খরচ হয়, সেখানে গবেষণায় প্লানটেইন খাওয়ানো প্রতি মুরগিতে খরচ মাত্র ২ টাকা ২১ পয়সা, যা মাথাপিছু মুরগি উৎপাদন খরচ অনেকাংশে কমিয়ে দেয়। গবেষণায় প্লানটেইন খাওয়ানো মুরগিতে মৃত্যুহার অনেক কম পাওয়া গেছে। মাংসে ক্ষতিকর চর্বির পরিমাণ কম, মাংসের স্বাদ ও লালচে রং তুলনামূলক বেশি এবং মাংস ও হাড় সাধারণ ব্রয়লারের অপেক্ষা শক্ত প্রকৃতির। অ্যান্টিবায়োটিকের বিকল্প হিসেবে গবাদিপশু মোটাতাজাকরণ ও মুরগির মাংস উৎপাদনে এ প্রযুক্তির নাম দেওয়া হয়েছে বাউ-প্লানটিভ।

গবেষক আল-মামুন জাপানের ইউয়াতে ইউনিভার্সিটি থেকে গবেষণায় সাফল্যের জন্য প্রেসিডেন্ট ও ডিন অ্যাওয়ার্ডে ভূষিত হন। ২০০৯ সালে জাপানে এবং ২০১৩ সালে চীনে তিনি সেরা তরুণ গবেষক হিসেবে স্বীকৃতি লাভ করেন। প্লানটেইন নিয়ে গবেষণা বিভিন্ন ধাপ ১২টি আন্তর্জাতিক সম্মেলনে উপস্থাপন করেছেন। ইতিমধ্যে সাতটি আন্তর্জাতিক সাময়িকীতে বাউ-প্লানটিভ প্রযুক্তি বিষয়ে গবেষকের প্রবন্ধ প্রকাশিত হয়েছে। গবেষকের দাবি, এ প্রযুক্তি ব্যবহার করে নিরাপদ ও পুষ্টিসমৃদ্ধ মাংস উৎপাদন করলে প্রাণিজ আমিষ হিসেবে ব্রয়লার মুরগির মাংসের প্রতি মানুষের আগ্রহ বাড়বে।

পশুপুষ্টি বিভাগের আয়োজনে বিশ্ববিদ্যালয়ের সহ-উপাচার্য মো. জসিমউদ্দিন খানের সভাপতিত্বে \\\’প্যানেল টেস্ট অব ফাংশনাল ব্রয়লার মিট\\\’ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপাচার্য মো. আলী আকবর। উপাচার্য বলেন, প্রাণিজ আমিষের চাহিদা পূরণ করতে ব্রয়লার মুরগি খাওয়ার বিকল্প নেই। খামারিরা এ প্রক্রিয়ায় ব্রয়লার উৎপাদন করলে সচেতন মানুষ নির্দ্বিধায় মাংস খেতে পারবেন। সরকার বাণিজ্যিকভাবে প্লানটেইন চাষের উদ্যোগ নিলে খামারিরা নিরাপদ মাংস উৎপাদনে উৎসাহী হবেন।

প্যানেল টেস্টে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক ও গবেষক, বাংলাদেশ একাডেমি অব সায়েন্স, এসিআই ও আফতাব বহুমুখী ফার্ম লিমিটেডের কর্মকর্তা, উদ্যোক্তা এবং পোলট্রি খামারিরা অংশ নেন। পরে তাঁরা গবেষণা পোলট্রি খামার পরিদর্শন করেন।
সূত্র:-প্রথম আলো              
 

Selim Rizvi chowdhury: চোরের মার বড় গলা................... এফডিসির প্রায় সাড়ে ৩ কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছিলেন পীযুষ বন্দ্যোপাধ্যায়

Selim Rizvi chowdhury: মজা পাইলাম ......................

Selim Rizvi chowdhury: একটি বেশব্লগ লিখেছে

প্রতিটি বালিশ কেনায় খরচ পড়েছে ৫৯৫৭ টাকা। আর প্রতিটি বালিশ ফ্ল্যাটে ওঠাতে খরচ হয়েছে ৭৬০ টাকা। প্রতিটি বিছানা কেনায় ব্যয় দেখানো হয়েছে ৫৯৮৬ টাকা। আর ওঠানোর ব্যয় দেখানো হয়েছে ৯৩১ টাকা। চাদর ও বালিশ কেনা হয়েছে ৩৩০টি করে।  খাট প্রতি কেনায় খরচ হয়েছে ৪৩৩৫৭ টাকা। আর ওঠানোর ব্যয় ১০৭৭৩ টাকা। খাট কেনা হয়েছে ১১০টি। একটি বৈদ্যুতিক চুলা কেনার খরচ পড়েছে ৭৭৪৭ টাকা। আর ওই চুলা ওঠাতে ব্যয় হয়েছে ৬৬৫০ টাকা। প্রতিটি বৈদ্যুতিক কেটলি কিনতে খরচ দেখানো হয়েছে ৫৩১৩ টাকা। আর ওঠানোর খরচ ২৯৪৫ টাকা। রুম পরিষ্কারের একটি মেশিন কিনতে সংশ্লিষ্টরা খরচ দেখিয়েছে ১২০১৮ টাকা। আর ওঠাতে খরচ দেখিয়েছে ৬৬৫০ টাকা। প্রতিটি ইলেক্ট্রিক আয়রন কিনতে খরচ পড়েছে ৪১৫৪ টাকা। আর ওঠানোর খরচ ২৯৪৫ টাকা। টেলিভিশন প্রতিটির দাম ৮৬৯৬০ টাকা। আর ওঠানোর খরচ ৭৬৩৮ টাকা। টেলিভিশন কেনা হয়েছে ১১০টি। সেগুলো রাখার জন্য আবার কেবিনেট করা হয়েছে ৫২ হাজার ৩৭৮ টাকা করে। ফ্রিজের দাম দেখানো হয়েছে প্রতিটি ৯৪২৫০ টাকা। আর ও

Selim Rizvi chowdhury: মাত্র দেড় ঘন্টায় জামিনে মুক্ত !!! সিলেট উইমেন্স মেডিক্যাল কলেজের ইন্টার্ন চিকিৎসক নিশাতকে ধর্ষণ ও হত্যার হুমকির মামলার আসামি ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি সারোয়ার হোসেন চৌধুরী

Selim Rizvi chowdhury: বিষয়-বস্তূ'র সাথে ব্যানারের "মহামান্যগন্যদের" ছবি সংযুক্তকরণের হেতু কি ...!? আল্লা তুমি বুঝিবার মত জ্ঞান দাও

Selim Rizvi chowdhury: গরীব ঘরের সেই সাবেক গভর্নর আতিয়ার রহমানের " তৈল মারা' এবং বাহবা'র রাজনীতির প্রকল্পের করুন-পরিণতি !!"কৃষকের ১০ টাকার ব্যাংক হিসাব" বোঝা হিসেবে দেখছে ব্যাংক,২ লক্ষাধিক হিসাব অচল !!!

Selim Rizvi chowdhury: ২৩ ঘণ্টা ৫ মিনিট রোজা ল্যাপল্যান্ডে অর্থাৎ ইফতারের পর মাত্র ৫৫ মিনিট পরেই সেহরি!! ফিনল্যান্ডের উলু শহরে রোজা ২৩ ঘণ্টার, আইসল্যান্ড ও গ্রিনল্যান্ডের প্রায় ২১ ঘণ্টার রোজা। বিশ্বে বেশি সময় ধরে রোজা স্ক্যান্ডিনেভিয়ান দেশগুলোতে

Selim Rizvi chowdhury: "সমস্ত গাজীপুর জেলার সীমানা ধরে " সিটি কর্পোরেশন " করলে( ১৬)ষোলকলা-পূর্ণ হত !!!

Selim Rizvi chowdhury: মশা আমদানি করে ডেঙ্গুর প্রকোপ কমানোর উপায় খোঁজা হচ্ছে

Selim Rizvi chowdhury: আর করবো না ধান চাষ , দেখবো তোরা কি খাস.........!!!

Selim Rizvi chowdhury: আমরা মেনে নিতে শিখে গেছি... ১৫ টাকার পানির বোতল আর ১২ টাকার ধান.............!!!,,,

Selim Rizvi chowdhury: ক্যাপশনটা যুথসই এবং সময়োপযোগী, উন্নয়নের জোয়ারে ভাসছে বাংলাদেশ............... ।

Selim Rizvi chowdhury: গণতন্ত্রের ভবিষ্যতের সবচেয়ে বড় ঝুঁকি প্রতিষ্ঠানগুলোকে দুর্বল করা ‘এগুলোকে অকার্যকর করার দিকে নিয়ে যাওয়া হয়েছে!!-টিআইবি’

Selim Rizvi chowdhury: দিয়েছিনু শ্রম খেয়েছিলে মধু ঝরেছিল কত ঘাম, সবই গেছে বৃথা, মধু আজ তিতা পেলামনা কোন দাম।

Selim Rizvi chowdhury: একটি বেশব্লগ লিখেছে

একদা নিশিথে মনের হরষে
কাঁপিয়েছিনু খাট,
পেলুম না পদ নেতা বড় বদ
দাও ফিরিয়ে সেই রাত।

দিয়েছিনু শ্রম খেয়েছিলে মধু
ঝরেছিল কত ঘাম,
সবই গেছে বৃথা, মধু আজ তিতা
পেলামনা কোন দাম।

পদ না দিয়া ঠকাইয়াছ মোরে
দুনিয়াটা লাগছে ফাঁকা,
তারচেয়ে যদি খাটিতাম ভাড়া
পাইতাম কিছু টাকা!!!

পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?


অথবা,

আজকের
গড়
এযাবত
২৬১

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত