Preview
প্রশ্ন করুন
রিলেটেড কিছু বিষয়

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

বেশতো বিজ্ঞাপন

মনসুর-উল-হাকিম  - ক্ষণস্থায়ী জীবন, . . বেশতো !!

মহাগুরু

শরীরের কোথাও গরম তেল পড়লে, সাথে সাথে - ১. পরিস্কার ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে, হালকা করে বরফ ঘষুন; ২. পরবর্তিতে এনতিবায়তিক ক্রিম লাগান, উপযুক্ত চিকিত্সকের পরামর্শ নিন; ৩. পানি খান স্বাভাবিকের থেকে সামান্য বেশি| দাগ এড়াতে - ১. উপযুক্ত চিকিত্সা করুন, যেন ঘা না হয়; ২. কচি ডাবের পানি দিয়ে নিয়মিত ধুয়ে দিন; ৩. কাচা হলুদ ও দুধের সর মিশিয়ে ক্রিমের মত করে লাগান|

দীপ্তি  আমি শান্ত, সাম্য, আহ্লাদী, মিশুক, পরিপাটি, গোছালো, খুব নরম মনের একজন সাধারণ মানুষ :)

মহাগুরু

ফোস্কা ফাটানোর চেষ্টা করবেন না। ফোস্কা ফাটালে সংক্রমণের ঝুঁকি থাকে। কারণ ফোস্কার পানি পরিশোষিত না হওয়া পর্যন্ত ফোস্কায় টান থাকে। অনেককে দেখি একটি সরু সুঁই আগুনের শিখায় গরম করে কিংবা স্পিরিটে ভালোমতো চুবিয়ে নিয়ে সুঁইটিকে জীবাণুমুক্ত করে ফোস্কার গোড়ার দিকে সুঁইয়ের ডগা দিয়ে ছোট ছিদ্র করে। এতে করে সুঁইটি বের করে আনার পর ভেতরের তরল ধীরে ধীরে বের হতে থাকবে।  এই কাজটি একদমই করবেন না । জানি, টান বেশি থাকলে অস্বস্তি লাগে, তখন দেখবেন ফোস্কা নিজে থেকেই ফেটে গেছে। 

কিছু ঘরোয়া উপদেশ : 

  • আক্রান্ত স্থানে ঠান্ডা পানি ঢালুন। তবে সাবান বা ক্ষার জাতীয় জিনিস ফোস্কা পড়া স্থানে না লাগানোই ভালো।
  • ফোস্কা যদি ফেটে যায় তাহলে পরিষ্কার জীবাণুমুক্ত শুকনো তুলো দিয়ে ফোস্কার তরল মুছে ফেলুন এবং পরিষ্কার জীবাণুমুক্ত শুকনো তুলো ও গজ দিয়ে ড্রেসিং করুন। 
  • ফোস্কা নিজে নিজে ফেটে গেলে ক্ষতটি খোলা রাখুন। ব্যান্ডেজ করবেন না একদম। 
  • ফোস্কা গভীর হলে নিজে থেকে কিছু করতে যাবেন না। বরং চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। 

Bappy  বন্ধুত্ব ভালোবাসা নিঃস্বার্থ সাহায্য

পন্ডিত

পুড়ে যাওয়া ত্বকে প্রথমেই শীতল পানি ঢালতে হবে বা বরফের সেক দিতে হবে। যদি ত্বক ঝলসে লাল হয়ে যায় তাহলে ঘরে প্রাথমিক চিকিৎসা দিলে চালবে, কারণ এরকম প্রথম মাত্রা দগ্ধ (ফার্স্ট ডিগ্রী বার্ন ) হলে কেবল মাত্র উপত্বকের (এপিদের্ম্স ) ক্ষতি হয়। সেক্ষেত্রে ঠান্ডা পানিতে ভেজানো পরিষ্কার কাপড় আক্রান্ত স্থানে ব্যান্ডিজের মতো খানিকটা সময় বেঁধে রাখতে হবে। ব্যথা বেশি হলে আক্রান্ত স্থানে ব্যথানাশক মলম বা ব্যথানাশক ওষুধ খেতে হবে। কিন্তু ফোসকা পড়তে শুরু করলে ধরে নিতে হবে ত্বক দ্বিতীয় মাত্রায় দগ্ধ (সেকেন্ড ডিগ্রী বার্ন )হয়েছে এবং দ্রুত হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে যেতে হবে। ত্বকে কাপড় সেঁটে থাকলে টেনে তোলা উচিত নয়, ফোসকা গলাবেন না। এ কারণে কসংক্রমণের ঝুঁকি বেড়ে যা।

লীনা জাম্বিল  অতি সাধারন

মহাগুরু

সাথে সাথে ঠান্ডা পানি দিতে হবে এবং ক্রিম লাগাতে পারেন ।

farhan khan tutul  সাদা মনকে নিয়ে নিঃস্ব এক মানুষ

জ্ঞানী

অতীত কালে তো এত হরেক রকমের চিকিৎসা ছিল না, নানান রকম রোগ বালাইতে কি করতেন তখনকার মানুষেরা? প্রাকৃতিক উপায়ে ঘরোয়া চিকিৎসা করতেন! দৈনন্দিন কাজের মাঝে প্রায়ই পুড়ে যাওয়ার মতন দুর্ঘটনা ঘটে থাকে, আর কোথাও পুড়ে গেলে চটজলদি জ্বলুনি কমানো না। কোথাও পুড়ে গেলে ক্ষত স্থানটি প্রথমে পানি দিয়ে ভালমত ধুয়ে নিন তারপর আলতো করে মুছে লাগিয়ে দিন মধুর একটা মোটা প্রলেপ। হ্যাঁ, মধু। এই মধুজ্বলুনি কমাবে তৎক্ষণাৎ আর ক্ষতস্থান ভরাটের কাজও শুরু হয়ে যাবে। মধুতে আছে ময়েশ্চারাইজিং ক্ষমতা অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল গুনাগুণ, যা ক্ষতস্থান দ্রুত আরোগ্য করবে এবং রোগ জীবাণুর সংক্রমণহতে দিবে না। চিকিত্সকের পরামর্শ নিতে অবহেলা করবেন না অবস্তা খারাপ হলে।


অথবা,

বেশতো বিজ্ঞাপন