টিনএজ সন্তান

প্রশ্ন

৫ টি উত্তর আছে

৭ টি উত্তর আছে

২ টি উত্তর আছে

৩ টি উত্তর আছে

১ টি উত্তর আছে

বেশব্লগ
আমাদের সমাজ রক্ষণশীল৷ সে কারণেই হয়ত যৌনশিক্ষার গুরুত্ব ভারত-বাংলাদেশে অনেক বেশি৷ এক্ষেত্রে স্কুল তো বটেই, পরিবারকেও এগিয়ে আসতে হবে৷ আর ইন্টারনেট নিয়ে ভয় থাকলেও, এ মাধ্যমটির সঠিক ... (সম্পূর্ন)
সাদাত সাদ একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে
বিয়ে করতে খুবই ইচ্ছে হয়। আসলে অল্প বয়সে বিয়ে করাটা নিশ্চয়ই খারাপ কিছুনা?  এখন না করলে ৫ বছর পর করব। মূলকথা বিয়ে তো করতেই হবে তবে এখন করলে ক্ষতি কি। যেহেতু পরিবার থেকে এক রকম জোর ... (সম্পূর্ন)
রামিম অচিন একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে
টিনএজ ফ্যাশন মানেই স্টাইলিশ ফ্যাশন। কারণ এই বয়সটাতে টিনরা নিজেদেরকে ভিন্ন ভাবে উপস্থাপন করতে চায়। টিনএজদের ফ্যাশনে রয়েছে বহু অনুসঙ্গ। এখনকার টিনরা এক্সপেরিমেন্টাল ফ্যাশনে বেশ আগ্... (সম্পূর্ন)
খুশি একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে
টিএজাররা অন্য সবার মত না। তারা চায় নিজেদেরকে একটু আলাদা আঙ্গিকে তুলে ধরতে একটু ফ্যাশনেবল করে সাঁজাতে। এই শীতেও টিনএজারদের ফ্যাশনের কোন কমতি নেই। আর ফ্যাশন হাউজগুলো টিনএজারদের কথা... (সম্পূর্ন)
আমানুল্লাহ সরকার একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে
বয়সন্ধিকাল হচ্ছে একটি নির্দিষ্ট বয়স যে সময়টাতে একটি শিশুর শরীর একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের শরীরে রূপান্তরিত হয় এবং প্রজননের সক্ষমতা লাভ করে। বয়সন্ধি শুরু হওয়ার সময় মস্তিস্ক থেকে... (সম্পূর্ন)
আমানুল্লাহ সরকার একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে
খবর
ফাহিম মাশরুর একটি খবর পোস্ট করেছে
খুশি একটি খবর পোস্ট করেছে
খুশি একটি খবর পোস্ট করেছে
খুশি একটি খবর পোস্ট করেছে
পূজা একটি খবর পোস্ট করেছে
টিপস
হাফিজ উল্লাহ একটি লিঙ্ক পোস্ট করেছে
রেহনুমা তারান্নুম একটি লিঙ্ক পোস্ট করেছে
আমানুল্লাহ সরকার একটি লিঙ্ক পোস্ট করেছে
দীপ্তি একটি লিঙ্ক পোস্ট করেছে
পূজা একটি লিঙ্ক পোস্ট করেছে
বেশটুন
যা অভ্যাস করবেন তাই হবে টিনএজভাবনা গুলো সত্যিই অন্যরকম
অন্তু একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে


ছেলেদের কাপড় পাল্টানো বদ অভ্যাস নাকি? সকাল বেলা এক ড্রেস দুপুরে আর এক ড্রেস বিকালে আর এক ড্রেস। সন্ধ্যায় আরেকটা . তবে এই অভ্যাস গুলো আমার ভালোই লাগে আপন ভাই বলে কথা একটু স্মার্ট না হলে ছেলেদের কে একদম খারাপ লাগে ঠিক যেমন টা লাগে ছাগল দাড়ির ছেলেদের [বাঘমামা-কোপা]
♦ মমিতা ♦ একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে


টিনএজ সন্তানঃ "বাবা, আমাকে তিন হাজার টাকা দাও ।"
বাবাঃ "দুই হাজার টাকা? তোমার এক হাজার টাকার কী দরকার পড়লো? কী করবে তুমি পাঁচশো টাকা দিয়ে? "
জোবায়ের রহমান একটি বেশব্লগ পোস্ট করেছে