আঁধার

আঁধার নিয়ে কি ভাবছো?

পায়েল : মুঠো ভরে অপেক্ষা দিয়ে ' ধরো ' বলে কখন যে চলে গেলো বেলা ! আমি তার খেয়াল রাখিনি, হিসেবের খাতা খুলে দেখি, শুধু বেড়েছে বয়েস, আর ব্যথাদের ঋণ, অপেক্ষা করতে করতে আতশবাজির মতো কখন যে ফুরিয়ে গেছি, তোমার ঈশ্বরও জানেন না, অথচ আঁধার পেরোবার আগে, তোমার আমাকে আকাশভরা সূর্যোদয় দেবার কথা ছিল......

*অপেক্ষা* *সূর্যোদয়* *প্রিয়কবিতা* *রুদ্রগোস্বামী* *আঁধার* *আকাশ*
৪/৫

পায়েল : মুঠো ভরে অপেক্ষা দিয়ে, ধরো বলে কখন যে চলে গেলো বেলা, আমি তার খেয়াল রাখিনি, হিসেবের খাতা খুলে দেখি, শুধু বেড়েছে বয়স আর ব্যথাদের ঋণ, অপেক্ষা করতে করতে আতশবাজির মতো, কখন যে ফুরিয়ে গেছি, তোমার ঈশ্বরও জানেন না, অথচ আঁধার পেরোবার আগে, তোমার আমাকে আকাশভরা সূর্যোদয় দেবার কথা ছিল......

*অপেক্ষা* *সূর্যোদয়* *আঁধার* *কবিতা* *আকাশ* *রুদ্রগোস্বামী*
৪/৫

পায়েল : ভালোবাসা মানে বিক্ষিপ্ত আঁধারে ধোঁয়া ছাড়ার প্রতিশ্রুতি, জ্বলন্ত আগুনের শেষ প্রান্তে অসহায় লুটোপুটি, ভালোবাসা মানে অমানিশার ঘোরে, ঝাপসা চোখে শুকিয়ে যাওয়া স্বপ্ন শিশির বিন্দু, ভালোবাসা মানে বিশ্বাসের প্রতিদানে ডুকরে কেঁদে ওঠা অনুভুতিহীন কফিনে শেষ পেরেকটি ঠুকে দেওয়া......

*ভালোবাসা* *শিশির* *অনুভূতি* *আঁধার* *প্রতিশ্রুতি* *আগুন*
৫/৫

পায়েল : কি করে বলবো, ভালোবাসি তোমায় ? তুমি না এলে, বিদায় জানাতে পারতাম কষ্টের এই মুহূর্তগুলোকে, তুমি না এলে, আলো দিয়ে ঢেকে দিতে পারতাম মনের আঁধারগুলোকে, তুমি না এলে, ঝেড়ে ফেলতে পারতাম অসময়ের এই হতাশাগুলোকে, তুমি না এলে, রঙিন করে ফেলতাম সাদাকালোয় ঘেরা এ সময়গুলোকে, তুমি না এলে, ভালোবাসতে পারতাম ভালবাসার শব্দগুলোকে......

*কষ্ট* *আঁধার* *মন* *সময়* *ভালোবাসা* *শব্দ* *কবিতা*
৪/৫

পায়েল : প্রতিদিনই আঁধারে আমার মৃত্যু হয়, মৃত্যু হয় আমার সকল স্বপ্নের, প্রতিদিনই মারা যায় তোমাকে দেখার স্বাদ, অতঃপর, আমি আবারও জীবিত হই মৃত্যু পর্ব কাটিয়ে ফিরে পাই আমার পুনর্জীবন, আমার মৃত্যুর পর বর্তমান অতীত হয়, ভবিষ্যৎ ভর করে বর্তমানে, আবার আসছে অন্ধকার, আবার ধেয়ে আসছে মৃত্যু, অতঃপর, আর কোন মৃত্যু নেই......

*আঁধার* *মৃত্যু* *জীবন* *বর্তমান* *কবিতা* *অতীত*

মেঘ: একটি বেশব্লগ লিখেছে

ফ্যানটির ঘড়ঘড় শব্দেই কিনা, ঘুম ভেংগে গেল। অনেক দিন ধরেই মা বলছিল ফ্যানটা বদলে ফেলতে। এই শব্দ নাকি নীচেরতলা তেও নাকি চলে যায়। কি জানি ,যায় হয়ত। আমি বদলাইনি। অনেক সময় এই ঘড়ঘড়ে শব্দ মেলোডির কাজ করে। ভাল রকম গাঢ় ঘুম এনে দেয়। যাহোক, দৃষ্টি ফেরালাম পাশে । তাকিয়ে দেখি মশারির দেওয়াল ঢেউ খেলে যাচ্ছে । কিসের মত লাগছে যেন? অনেকটা পতাকার মত নয় কি, হ্যা অনেক সময় ধানক্ষেতের ঢেউয়ের মতও অবশ্য ।
উঠতে ইচ্ছে করছেনা বরং দেখতে ইচ্ছে করছে এই নিশী রাতের ঢেউ ঢেউ খেলা। আবার এই দোলানো বাতাসে দাঁড়ানোর সাধ ও লুকোতে পারছিনা।

রুমের দরোজা খুলে বারান্দায় দাঁড়ালাম ।আমার সামনে রাতের চাদরে ঢাকা এক শহর। জানালাহীনতার কারণে মনে হচ্ছে আমি আঁধার ছুঁতে পারব।
আকাশও আজই বেশ কাল লাগছে। একপলকে তাকিয়ে থাকতে বেশ ভাল লাগে। মনে হয় এখনি বিদ্যুৎ চমকাবে এবং আমি দেখতে পাব দিগন্ত জুড়ানো ঘন কাল ঝড়মেঘ। আর এই মৃদু বাতাস বুঝি সেই ঝড়মেঘের অগ্রদূত।

আঁধারের দূত, 
আমি আজ তোমায় ছুঁব।

*রাত* *সন্ধ্যা* *আঁধার*

পায়েল : ভালোবাসা, শিরোনামহীন পথে, একরাশ কাশফুল, ভালোবাসা, অশান্ত হৃদয়ে অচেনা পথিকের ভুল, ভালোবাসা, ছন্দ ছোঁয়া, রাগিনীর কিছু রাগ, ভালোবাসা, শেষ বিকেলের প্রজাপতির পরাগ, ভালোবাসা, স্বপ্নচারিনীর নির্জন বিচরণ, ভালোবাসা, তুমি ছাড়া এ অন্তর দহন, ভালোবাসা, আঁচল বিছিয়ে আছি, ঝরাও শিউলি ফুল, ভালোবাসা, আঁধারে হারাবো সুদূর, হোক যত ভুল......

*ফুল* *ভুল* *ছোঁয়া* *ভালোবাসা* *স্বপ্ন* *আঁধার* *কবিতা*

জোবায়ের রহমান: তুমি আমার কথা শুনে বলো কেন এত অন্ধকার !!!!!!! আমি বলি ওটা অন্ধকার নয় , ওটা আলোর অভাব যে সময়ে তুমি আছো , সে সময়ের কাছে এ কোন ঘটনা বা দোষ নয় বরং ল্যান্ডস্কেপের সুর্য চুরি হয়ে গিয়ে আলোর অভাবটাই হয়ে ঊঠছে এই সময়ের স্বভাব।

*আলো* *আঁধার*

অসমাপ্ত কাব্য: আমি আঁধারে তামাশায় ঘেরা জীবন দেখেছি, আমার বুকের ভেতর শূন্যতা থেকে শূন্যরা এসে বাসা বেঁধেছে, আমি খুঁজেছি তোমাকে সেই আঁধারে আমার মনের যত রঙ্গলীলা; আজ সাঙ্গ হতেছে এই ভবের বাজারে।

*আধার* *ভবেরবাজার*
ছবি

লীনা জাম্বিল: ফটো পোস্ট করেছে

আঁধার পেড়িয়ে এলো এ ধরায় নতুন সূর্যদোয় -------------- কবে হবে এমন ক্ষণ রয়েছি প্রতীক্ষায় --------

নিশার জীবন শেষ হলো আজ আশা পেলো হৃদয় --

*আঁধার* *ধরা*

মারিয়া আক্তার অর্পিতা: যদিও তখন আকাশ থাকবে বৈরী কদম ও গুচ্ছ হাতে নিয়ে আমি তৈরী... উতলা আকাশ মেঘে মেঘে হবে কালো নামিবে আধাঁর বেলা ফুরাবার ক্ষণে মেঘ মৌলাও বৃষ্টির ও মনে মনে কদম ও গুচ্ছ খোপায়ে জড়ায়ে দিয়ে জ্বলভরা মাঠে নাচিব তোমায় নিয়ে ... চলে এসো...চলে এসো...এক বর্ষায়...

*প্রিয়গান* *ভালোলাগা-গান* *বর্ষা* *কদম-ফুল* *বৃষ্টি* *আকাশ* *আধাঁর*

অসমাপ্ত কাব্য: সবাই ই আলো ভালোবাসে, আধাঁরের দিকে ফিরেও চায় না। আমি জানি সেই আধাঁরের মাঝেও কিছু মানুষের বসবাস,যারা আলো সহ্য করতে পারে না।

*আঁধার*
ছবি

মারিয়া আক্তার অর্পিতা: ফটো পোস্ট করেছে

লালবাগ কেল্লা

ঢাকার ৪০০ বছর পূর্তি উপলক্ষে লালবাগ কেল্লায় লাইটিং শো হয়েছিলো....আমি নিজে ছবি তুলছি.... আমি নিজে অনেক বেশি সৌভাগ্যবান...যে আমি পুরান ঢাকায় জন্ম নিয়েছি.......(খুকখুকহাসি)(আতশবাজি)(তালি)(গ্যাংনাম)

*আমাদেরগৌরব* *ঐতিহ্য* *প্রিয়ঢাকা* *পুরনোঢাকায়ভ্রমণ* *আঁধার* *সৌভাগ্য* *লালবাগকেল্লা* *প্রিয়শহরঢাকা* *বাংলাদেশ* *পুরানোঢাকা*

কাকতাড়ুয়া: আঁধার বারে প্রহরে প্রহরে কোন আলো নেই চাঁদের দেশে, সাগরের জল শুকিয়ে কাঁদে জোয়ার আসে না এই হতাশে। অদ্ভুত সব হিম বাতাসে প্রদীপের শিখা ভয়েতে কাঁপে, আগুন লেগেছে তারার দেশে থরে থরে ছায়া এগিয়ে আসে। নিঝঝুম ঐ রজনী পারে খোলা আলোয়ান একা পরে থাকে...।।

*আলোয়ান* *রাত* *আঁধার* *প্রহর* *তারা* *আকাশ*

কাকতাড়ুয়া: মায়াবী রাত্রি মায়াজালে জড়িয়ে নিচ্ছে সমস্ত চরাচর, অভিমানি চাঁদ অভিমানি মুখে তাকিয়ে আছে এই ধরণির দিকে, ধূসর আঁধার চাঁদের অভিমানি আলোয় পালিয়ে যাচ্ছে এখানে সেখানে, রাত জাগা পাখি দুরু দুরু বুকে ডাকছে পাতার আড়ালে, রাতের শিশির সংগোপনে ঝরে পরছে সবুজের বুকে।

*রাত* *চাঁদ* *আঁধার* *শিশির*

tonimaa: *আঁধার* খুব ভয় পাই (ভয়পাইসি)(ভয়পাইসি)

সুমন (দুষ্ট পাখির বাবা): *আঁধার* না হলে ঘুমাতে পারিনা (হাইতুলি)

মাহমুদ অনি: প্রতারনাটা ভুলবঃশত হয়না বরং এটা হচ্ছে পরিকল্পিত ভাবনা।

*আঁধার*

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

QA

★ ঘুরে আসুন প্রশ্নোত্তরের দুনিয়ায় ★