এসএসসির অভিজ্ঞতা

এসএসসিরঅভিজ্ঞতা নিয়ে কি ভাবছো?

Lutfun Nessa: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* অনেক ভালো ছিল সেই দিনগুলো,,,তবে মহা শত্রু অংকে খারাপ ছিলাম বলে আব্বা আমার পরীক্ষা বন্ধ করে দিতে চেয়েছিলো,,, মা আর চাচির বদৌলতে শেষ পর্যন্ত পরীক্ষা দিতে পেরেছিলাম,,, নইলে আমাকে ক্লাস নাইন পাশ করেছি বলতে হতো...যাহ বাবা অংক তুই মর!!!(লজ্জা)

ভালবাসা কবি..!!!: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* অনেক অনেক অনেক বেশি ভালো ছিল দিনগুলো। স্কুল, স্কুলের বন্ধুবান্ধব, একে অপরের প্রতি এতো টান, হেসে খেলে পরীক্ষা দেয়া, একসাথে যাওয়া আসা। সত্যি ই অনেক ভালো ছিল। আল্লাহ্‌র রহমতে সবারই রেজাল্ট ও খুব ভালো ই হয়েছিল। যদিও সময় খারাপ ছিল...

লুব্ধক: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* পরিক্ষার আগে সবসময় হাসিখুশি(চিল) মুডে থাকার চেষ্টা করতাম। অনেককে দেখতাম পরিক্ষার আগে শেষ মুহূর্তটা পর্যন্ত জান-প্রাণ দিয়ে পড়ছে। এতে টেনশান বেড়ে যায়। তাই এই কাজটা করতাম না। বরং পরিক্ষার আগে বন্ধুদের সাথে খোশগল্পে মেতে উঠতাম। (কুল)

mubin rahaman: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* ওই কষ্ট আর মনে করতে চাই না ........

আল ইমরান: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* প্রথম দিনে কেন্দ্র হারিয়ে ফেলেছিলাম। প্রায় মিনিট দশেক পরে কেন্দ্রে ঢুকেছি। আর গ্রেডিং সিস্টেমের প্রথম ব্যাচ ছিলাম বলে মনের ভেতর কেমন যেন একটা অনুভুতি হচ্ছিল।

আমানুল্লাহ সরকার: একটি বেশব্লগ লিখেছে

এসএসসি পরীক্ষার স্মৃতিচারণ বা অভিজ্ঞতা যাই বলি না কেন আমার জন্য তা ছিল হতাশা আর বিড়ম্বনায় ভরা। যাই হোক জীবনতো আর থেমে থাকেনি একে একে কয়েকটি বড় পরীক্ষাকে জয় করে সার্টিফিকেট ও নৈতিক মূল্যবোধের ঝুলিটা বেশ বড় করতে পেরেছি এটাই সার্থকতা।

এস এস সি পরীক্ষার অভিজ্ঞতা বা স্মৃতি সবার সাথে শেয়ার করার কোন ইচ্ছে আমার ছিলনা কিন্তু শ্রদ্ধেয়ও @dipty আপুর অনুরোধ ফেলতে পারলাম না। তাই বিস্তর ঘটনাকে সংখেপে উপস্থাপনের চেষ্টা করছি।

ফিরে যাচ্ছি সেই ২০০৫ সালে। এস এস সি পরী্ক্ষার আর মাত্র কয়েকদিন বাঁকি। স্কুলের টেষ্ট পরীক্ষায় আমি ফাস্ট হলাম। মনে মনে আনন্দে ছিলাম অন্তত ভাল একটা রেজাল্ট সবাইকে উপহার দিতে পারব। কিন্তু একদিন স্কুল থেকে ফেরার পথে হঠাৎ পেটের মধ্যে প্রচন্ড ব্যথা আরম্ভ হল। কোন কিছুতেই যেন ব্যথা কমে না। ব্যথার যন্ত্রনায় আমি কোন ভাবেই ঠিক থাকতে পারছিলাম না। তারপর তড়িৎ আমাকে নিয়ে যাওয়া হল আমাদের উপজেলা হাসপাতালে। সেখানেও অবস্থার উন্নতি না হওয়ার ফলে তারা রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর নির্দেশ দিলেন । আমার তখন খুব একটা হুশ নেই শুধু দেখলাম একটা এম্বুলেন্স এ আমাকে উঠিয়ে দেওয়া হল। তার পর রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চোখ খুলে আম্মাকে জিজ্ঞেস করাম। কয়টা বাজে আম্মা বলল বিকেল ৫টা। আমি অবাক হলাম কারণ মাঝ খানে আমি প্রায় ২৭ ঘন্টা অজ্ঞান ছিলাম। তারপর হাসপাতালে কেটে গেল ১৫দিন। বাড়িতে ফেরার পরদিন থেকেই শুরু হল এস এস সি পরীক্ষা। অসুস্থতার মাঝেও সবকয়টি পরীক্ষা দিতে পেরেছিলাম। কিন্তু সবার প্রত্যাশা ভেঙ্গে গেল! সবাই যে রেজাল্ট আমার কাছ থেকে চেয়েছিল তা আমি পূরণ করতে পারিনি। কারণ অসুস্থতা আমাকে কিছুই করতে দেয়নি। মাঝে আরো অনেক কথা আছে যা বলার সময় আমার হাতে নেই.........

আমি আশা করব দেশজুড়ে আমার যত ভাই বোনেরা পরীক্ষা দিচ্ছে তারা যেন সুস্থ থেকে পরীক্ষা দিতে পারে। নিজের শরীর স্বাস্থ্যের দিকে লক্ষ্য রেখে সবার প্রত্যাশা অনুযায়ী ভাল ফলাফল করতে পারে। শুভ কামনা রইল সকল এস এস সি পরীক্ষার্থীদের জন্য।

*এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* *পরীক্ষা* *হতাশা*

একজন অলস মানুষ: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* সুখকর নয় ....বেদনাবিধুর...

এ. আর. খান: ভোরে চোখ খুলিতেই ছ্যাঁৎ করিয়া উঠিয়াছিল বুকটা(ভয়পাইসি)কি এক অজানা আশংকায়(নাআআআ) মা জননী মাথায় ফুঁক দিলেন.. কুরুক্ষেত্রে যাইবা মাত্র মাঠে দন্ডায়মান অভিভাবক গণের মুখ দেখিয়া মনে হইতেছিল...যেন.. সন্তানদিগকে কাশিমপুর কারাগারে পাঠাইতেছেন!! (খিকখিক)(খুশী২)

*এসএসসিরঅভিজ্ঞতা*

আশিকুর রাসেল: ২০০৮ সাল ,এসএসসি পরীক্ষা শেষের আনন্দমুখ (খুকখুকহাসি) এখন মিস করি সেই দিনগুলোকে। আসলেই খুব মজার ছিল পুরনো স্কুল লাইফ, বন্ধুরা... সবাই এখন দেশের বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে। তবুও আমাদের বন্ধন এখনো অটুট যদিও অনেক ঘটনা - অঘটনা। ছবিতে আরও কয়েকজন বাদ আছে ।

*এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* *এসএসসিপরীক্ষা*
সাক্ষী

হাফিজ উল্লাহ: একটি ঘটনা জানাচ্ছে

পরীক্ষার সময় আমাদের সবারপ্রিয় বাক্য "দোস্ত একটু দেখাস না " (ব্যাপকটেনশনেআসি৩)
*এসএসসিরঅভিজ্ঞতা*

হাফিজ উল্লাহ: পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ অনুভূতি যখন... পরীক্ষা দিতে যাই খুব সুন্দর একটা প্রশ্ন হাতে পাই আর একজন আরেক জন এর দিকে তাকিয়ে হেসে বলি.. "এক টাও ত পারিনারে!" (চুপ২)(ব্যাপকটেনশনেআসি)(ব্যাপকটেনশনেআসি৩)

*এসএসসিরঅভিজ্ঞতা*

৪২০.com: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* ১৪ ফেব্রুয়ারী তে যে পরীক্ষাটি পরেসে সেটাতে অনেক মজা পেয়েছি, কারণ চিন্তা হীন ছিল সারা দিব কোনো মেয়ে জালাতন করেনি.

ছবি

হাফিজ উল্লাহ: ফটো পোস্ট করেছে

পরীক্ষার হলে জুলেখা ম্যাডাম এইভাবে আমার দিকে তাকাইয়া থাকত (চিৎকার)

তারে দেখিয়া সব যাইতাম ভুলিয়া কামরায়তাম কলমের মাথা খাতায় কিছু না লিখিয়া (মানিনা)

*এসএসসিরঅভিজ্ঞতা*

রাজকুমার: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* আমার এসএসসিতে আমার পাশে বসেছিল ইয়া মোটা এক ছেলে আমাকে হুমকি দিয়েছিল ওকে না দেখালে আমাকে মেরে ফেলবে। আল্লাহর কাছে শুকরিয়া আমি এখনো বেচে আছি।

জোকস

পাগলী: একটি জোকস পোস্ট করেছে

ফেল ত আমি করবোই , সারাদিন বেশতোয়িং করলে কি পাশ করা যায়? সবাইকে অগ্রিম দাওয়াত দিয়ে রাখলাম। (লজ্জা)(শয়তানিহাসি)
*এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* *বেশতো* *বিয়ে* *দাওয়াত*

Salim Reza: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* পরীক্ষার আগের দিন , রাত ১১ পর্যন্ত পড়েছিলাম!! পর দিন , আল্লাহ্‌র রহমতে খুব ভালো ভাবে পরীক্ষা দিলাম । (খুকখুকহাসি)(চিন্তাকরি)(ভালো)

কবিয়াল সাদমান: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* Higher Math এর দিন বিডিআর বিদ্রোহ হইসিল । আমি রাইফেলস এর ছাত্র । আমার সিট পরসিল লালবাগে । প্রত্যেক পরীক্ষার দিন আমি বিডিআর এর ভিতর দিয়ে যেতাম । সেইদিনই কেন জানি ঐখান দিয়ে যাই নাই :/ আল্লাহ বাঁচাইসে নাইলে জানি নাহ কি হতো । পরীক্ষার হ

৪২০.com: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* এস এস সি পরীক্ষার আগের দিন পরীক্ষার কথা ভুলে যাই, সন্ধায় বন্দুদের সাথে খেলতে যাই. রাতে বড় ভাই আসে অনেক বকা দেয় বকা খেয়ে পরীক্ষার কথা মনে পরে.

Abdullah Muhammad Jobayar: *এসএসসিরঅভিজ্ঞতা* এস এস সি পরীক্ষার আগ মূহূর্তে কয়েকদিন আমি অনেক অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি ছিলাম। বেশ দুশ্চিন্তায় ছিলাম- কি হয়, না হয়। কিন্তু ফাইনালি পরীক্ষা ভালো হয়েছিল। আমিও এ+ পেয়েছিলাম। হা, হা, হা, (মনখারাপ)(কান্না২)(খুকখুকহাসি)(খুশী২)

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

QA

★ ঘুরে আসুন প্রশ্নোত্তরের দুনিয়ায় ★