পাদুকা

পাদুকা নিয়ে কি ভাবছো?

শপাহলিক: একটি বেশব্লগ লিখেছে

বর্ষায় জুতা নির্বাচন একটু ঝামেলারই বটে। সাধারণ চামড়ার জুতা বৃষ্টিজলে দ্রুত নষ্ট হয়। আর বর্ষা মানেই পায়ের নিচে নোংরা কাদাজল। বর্ষায় চামড়ার জুতা দিয়ে কাদা পানির ঝক্কি সামলানো মুশকিল। তাই এ সময় চাই রাবার, স্পঞ্জ, রেক্সিন, সিনথেটিক কিংবা প্লাস্টিকের মতো বর্ষার উপযোগী স্যান্ডেল। পানিতে ভিজলেও কিচ্ছু হবে না আবার কাদার মাখামাখিতেও ভয় নেই। সব মিলিয়ে পথ চলতে পারবেন বিনা বাধায়। 

কিনতে ক্লিক করুন

চামড়া বা রেক্সিনের জুতো পানিতে খুব দ্রুত নষ্ট হয়। সে কথা মাথায় রেখে পরতে পারেন নরম রাবার বা প্লাস্টিকের তৈরি স্যান্ডেল। একটা সময় শুধু দুই ফিতার স্পঞ্জের স্যান্ডেলই পাওয়া যেত। এখন এসব স্যান্ডেলে এসেছে নকশার ভিন্নতা ও রঙের বৈচিত্র্য। সারা বছর এক ভাবে হাটা চলা করলেও বৃষ্টিতে সবাইকেই বিপাকে পড়তে হয়। যদি ঘরে কোন রাবারের স্যান্ডেল না থাকে তবে তো সমস্যা আরো বেশি। চামড়ার জুতা ভিজে ভারি হয়ে যায়।

কিনতে ক্লিক করুন

ভেজা জুতা পড়ে থাকলে সারাক্ষণ অস্বস্তির মধ্যে থাকতে হয়। তখন দৌড়াতে হয় প্লাস্টিকের স্যান্ডেল কিনতে। কিন্তু বৃষ্টিতে সব ধরনের স্যান্ডেলও আবার আরামদায়ক নয়। আর পায়ের যত্ন বলে কথা! বৃষ্টিতে পা ভিজে অনেক সময় ফুসকুড়ি, চুলকানির মতো নানা ধরনের চর্মরোগ হতে পারে। বর্ষায়ও জুতা খোলামেলা হওয়াই ভালো। তবে খোলামেলা বা আঁটসাঁট যেমনই নির্বাচন করুন না কেন, নিয়মিত পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখতে হবে পা ও পাদুকা উভয়ই। তাই একটু খোঁজ নিয়ে বাছাই করেই স্যান্ডেল কেনা উচিত।

কিনতে ক্লিক করুন

গ্রীষ্ম, বর্ষা, শীত সব ঋতুতেই চপ্পল পছন্দ অনেকেরই। বর্ষার কথা মাথায় রেখেই বাজারে এসেছে রাবার, রেক্সিন ও স্পঞ্জের তৈরি বিভিন্ন ডিজাইনের চপ্পল এবং স্যান্ডেল। এগুলো পরতে যেমন আরামদায়ক, তেমনি পানিতে এর ঔজ্জ্বল্য নষ্ট হয় না, আবার দামেও সাশ্রয়ী।

কিনতে ক্লিক করুন

এখন অনেক তরুণ-তরুণীকেই আটপৌরে সাজের সঙ্গে নানা রকমের বাহারি চপ্পল পরতে দেখা যায়। বর্ষায় যেহেতু উজ্জ্বল রঙের পোশাক বেশি পরা হয়, তাই চপ্পল ও স্যান্ডেলও তৈরি হচ্ছে বাহারি রঙে। বাজার পাবেন বিভিন্ন রঙের চপ্পল ও স্যান্ডেল। বিশেষ করে গোলাপি, কালো, বেগুনি, সাদা, সবুজ ইত্যাদি রঙের চলই বেশি। এসব স্যান্ডেলের নকশাও নজর কাড়া। ফুল, রেখা ও জ্যামিতিক নকশা বেশ কয়েক বছর ধরেই জনপ্রিয়, সেই সঙ্গে যুক্ত হয়েছে প্লাস্টিকের সঙ্গে ভেলভেটের কাজ করা স্যান্ডেল। মেয়েদের স্যান্ডেলে ছোট ছোট চুমকি ও পুঁতির সামান্য কাজ বরাবরের মতো জনপ্রিয়। 

কিনতে ক্লিক করুন

কোথায় পাবেন: বৈচিত্র্যময় নকশা করা বিভিন্ন রঙের চপ্পল ও স্যান্ডেল পাওয়া যাবে নিউমার্কেট ও চাঁদনী চকে। নকশা ও মানের ওপর ভিত্তি করে রাবার ও স্পঞ্জের জুতার দাম ৩০০ থেকে ১০০০ টাকা। এ ছাড়া বিভিন্ন দেশীয় ফ্যাশন হাউস ও ব্র্যান্ডের দোকানগুলোতে পাবেন পছন্দমতো চপ্পল ও স্যান্ডেল। তাই আর দেরি নয়, বৃষ্টির সঙ্গে পাল্লা দিয়ে চলার জন্য দ্রুত কিনে ফেলুন বর্ষার বাহারি পাদুকা। অনলাইনে কিনতে চাইলে আজকের ডিলে একবার ঢু মেরে দেখতে পারেন। দামও কম, পেয়ে যাবেন ৫০০ টাকার মধ্যে।

*বর্ষাকাল* *পাদুকা* *স্যান্ডেল* *জুতা* *লিপস্টিকস্যান্ডেল*
ছবি

লিজা : ফটো পোস্ট করেছে

৫/৫

জেনে নিন কোন জুতার কি নাম।

*টিপস* *ফটো* *জুতা* *পাদুকা*

সুমন: ..........জুতা জোড়া কেমন??

©The Arafat™: শুভো সকাল, মনটা ভালা , ব্যাপক ভালা ...ভাইয়া লন্ঠন থিক্কা ফিরল .. আমার জন্য *পাদুকা* এনেছে (খরগোশ)..১ বছরের জন্য খুশি হইয়া গেলাম (খুশী)

©The Arafat™: *পাদুকা* by "René van den Berg"

©The Arafat™: Scary Beautiful *পাদুকা* by "Leanie van der Vyver" and Dutch shoe designer "René van den Berg" কার লাগবে ? (শয়তানিহাসি)

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

QA

★ ঘুরে আসুন প্রশ্নোত্তরের দুনিয়ায় ★