ফ্রেন্ডশিপ ডে

ফ্রেন্ডশিপডে নিয়ে কি ভাবছো?

আলোহীন ল্যাম্পপোস্ট: একটি বেশব্লগ লিখেছে

বন্ধু মানে

সাদা শার্টে কালো কালির দাগ।

বন্ধু মানে,
সকল হাসি-কান্নার ভাগ।

বন্ধু মানে,
এক কাপ চা দু'তিনজন ভাগ করে খাওয়া।

বন্ধু মানে,
ক্লাসে উপস্হিত না থাকলেও তার প্রেজেন্ট দিয়ে দেয়া।

বন্ধু মানে,
পরীক্ষায় খাতা খুলে দেখানো ।

বন্ধু মানে,
প্রেমে সাহস যুগানো।

বন্ধু মানে,
ফেলে আসা দিনগুলো।

বন্ধু মানে,
সামনের বাকি দিনগুলো।

বন্ধু মানে,
চলছে, চলবে....

হ্যাপি ফ্রেন্ডশিপ ডে। চারপাশে অনেক বন্ধু। কেউ সত্যিকারের,কেউ বা মুখোশ ধারী। কিন্তু বন্ধুত্ব শব্দটি পবিত্র। টিকে থাকুক বন্ধুত্ব। বন্ধুরা আজীবন বেঁচে থাকুক বন্ধুত্বের মাঝে। :)

 

*বন্ধু* *ফ্রেন্ডশিপডে* *স্কুল* *আবেগ*

শপাহলিক: একটি বেশব্লগ লিখেছে

বন্ধু দিবসের উপহারআগস্টের প্রথম রোববার হচ্ছে বন্ধু দিবস। পৃথিবীর সব দেশের সব শ্রেণীর সব পেশার মানুষ এই দিনটি তার প্রিয় বন্ধুর জন্য উৎসর্গ করে। মার্কিন লেখক হেনরি ডেভিড থিওরোর একটা কথা খুব মনে পড়ছে। তিনি বলেছিলেন, ‘আমার বন্ধুর জন্য সবচেয়ে বেশি যা করতে পারি, তা হলো শুধু বন্ধু হয়ে থাকা। তাকে দেওয়ার মতো কোনো সম্পদ আমার নেই। বন্ধু দিবসে ভালোবাসা, নির্ভরতা, বিশ্বাস ও প্রতিশ্রুতিই হচ্ছে বন্ধুর জন্য একজন বন্ধুর সবচেয়ে বড় উপহার। তবুও ভালোবাসার নিদর্শন কে না রাখতে চায়? কে না চায় বন্ধুত্বের স্মৃতিগুলো আগলে রাখতে? তাই ভালোবাসার নিদর্শন রাখতে বন্ধু দিবসে আপনিও আপনার কাছের বন্ধুকে দিতে পারেন এ রকম কিছু বিশেষ উপহার। নিচের ছবিগুলো থেকে বেছে নিন আপনার পছন্দেরটি।

ফুল

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
বন্ধুর কাছ থেকে ফুল পেতে কে না ভালোবাসে। গোলাপ বন্ধুত্বের প্রতীক, তাই আপনার বন্ধুকে উপহার দিতে পারেন একগুচ্ছ গোলাপ কিংবা রজনীগন্ধার স্টিক। তা ছাড়া দিতে পারেন হরেক রকমের ফুলের তোড়া।

ফ্রেন্ডশিপ ব্যান্ড

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
বন্ধুত্বের প্রতীক হিসেবে ফ্রেন্ডশিপ ব্যান্ড খুবই জনপ্রিয়। বন্ধু দিবসে আপনিও আপনার বন্ধুকে একটি ফ্রেন্ডশিপ ব্যান্ড উপহার দিয়ে খুশি করে দিতে পারেন। দেশের যেকোনো গিফট শপে কম দামেই পেয়ে যাবেন আকর্ষণীয় ফ্রেন্ডশিপ ব্যান্ড। দিতে পারেন চমৎকার ইলেকট্রনিক্স ব্র্যান্ডও।

চকলেট

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
বন্ধু দিবসে বন্ধুর জন্য কিনে ফেলতে চকলেট। অনেক আগে থেকেই বন্ধু দিবসের চমকপ্রদ উপহার হিসেবে চকলেট ব্যবহৃত হয়ে আসছে।

চামড়ার গিফ্ট

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
বন্ধুর জন্য বেল্ট, পার্স কিনতে পারেন।‌ কম দামে সুন্দর বেল্ট, ওয়ালেট, ব্যাগ শহরের সব নামি-দামি দোকান গুলো ছাড়াও ঘরে বসে অনলাইন মার্কেট থেকে কিনতে পারবেন। মোটামুটি‌ দাম শুরু ১৯৯ টাকা থেকে।

পোলো-শার্ট

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
ফ্রেন্ডশিপডেতে বন্ধুর জন্য কিনে ফেলুন কোনো ভালো ফ্যাশন ব্র্যান্ডেড পোলো শার্ট। তার পছন্দের কালারের পোলো শার্ট কিনলে আরো ভালো হয়।

সানগ্লাস বা অ্যাকসেসরিজ

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
ছেলেদের কাছে অ্যাকসেসারিজের কালেকশন বেশ পছন্দের। লকেট হোক বা ব্রেসলেট অথবা সানগ্লাস ছেলেদের কিন্তু পছন্দ হবেই। তবে যারা একটু ফ্যাশনেবল তাদেরকে অ্যাকসেসারিজে বেশ মানায়। বন্ধু দিবসের উপহার হিসেবে এই গিফট আইটেম দিতে পারেন।

ঘড়ি

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
অল্পদামে ভালো মানের ঘড়ি হতে পারে আপনার বন্ধুর জন্য অন্যতম উপহার। আকর্ষণীয় এসব ঘড়ি আপনি যেকোন ওয়াচ হাউজেই পেয়ে যাবেন। অনলাইন থেকে অর্ডার করে এখনি কিনে নিতে পারেন।

পারফিউম

উপহার কিনতে ক্লিক করুন
কথায় আছে সুগন্ধির ঘ্রানে সবসময় কাছে টানে। তাই এই বন্ধু দিবসে আপনর বন্ধুর জন্য বেছে নিতে পারেন আকর্ষণীয় পারফিউম।

এসব ছাড়াও গিফট শপগুলোতে বন্ধুকে উপহার দেওয়ার মতো অনেক কিছুই খুঁজে পাবেন, যেমন—চাবির রিং, ডায়েরি, ফটোফ্রেম, মেয়ে বন্ধুর জন্য দিতে পারেন ব্যাগ, পার্স, গহণা আইটেম সহ আরো অনেক কিছু। বন্ধুর সঙ্গে আড্ডায় রাঙিয়ে তুলুন বন্ধু দিবস। উপহার ছোট হোক বা বড় হোক, দামি হোক বা সস্তা হোক, সেগুলো হচ্ছে আমাদের অনুভূতি। আর অনূভূতির দাম হচ্ছে অসীম। অতঃপর শুভ হোক বন্ধু দিবস, জয় হোক বন্ধুত্বের।

*ফ্রেন্ডশিপডে* *বন্ধুদিবস* *স্মার্টশপিং*

শপাহলিক: একটি বেশব্লগ লিখেছে

বন্ধু দিবসের উপহারফুল দিতে ভুল করনা বন্ধু! জোটে যদি একটি পয়সা খাদ্য কিনিও ক্ষুধার লাগি, জোটে যদি দুটি পয়সা, ফুল কিনিও হে অনুরাগী।’ কবির এই পঙ্ক্তি নিছক বাক্যবিলাস নয় এতে রয়েছে সৌন্দর্য উপভোগ, ভালোবাসা আর বন্ধুত্বের পরশ নেয়ার কামনা-বাসনা। রয়েছে ফুলের প্রতি গভীর গভীরতা ভালোবাসা সত্যকথন। আর দু’দিন বাদেই বিশ্ব বন্ধু দিবস। বন্ধুদের জন্য এই দিনটি একেবারেই আলাদা। পৃথিবীর সব দেশের সব শ্রেণীর সব পেশার মানুষ এই দিনটি তার প্রিয় বন্ধুর জন্য উৎসর্গ করে, দেয় নানা রকমের উপহার। এ দিনটিতে তাজা ফুল হতে পারে বন্ধুর জন্য সেরা উপহার।

কিনতে ক্লিক করুনকিনতে ক্লিক করুনবিশ্ব ফ্রেন্ডশিপ ডেতে বন্ধুতে ফুলের পরশ ছড়িয়ে দিতে অনলাইন শপ আজকের ডিল নিয়ে এসেছে তাজা ফুলের সমাহার। যারা ঢাকার মধ্যে রয়েছেন তারা অর্ডার করেই পেয়ে যেতে পারেন মনমাতানো সব রঙিণ ফুল।

কিনতে ক্লিক করুনকিনতে ক্লিক করুনবিশ্ব বন্ধুত্ব দিবেসে ফুলের স্নিগ্ধতার পরশ মুহূর্তেই দুঃখ-বেদনা-ক্লান্তি দূর বন্ধুত্বকে করে তুলবে আরও রঙিণ। মন ও শরীর নিমিষেই ফুরফুরে করে দেয়ার ঐশ্বরিক ক্ষমতা রয়েছে ফুলের।এই দিনটিতে যদি ফুলের তোড়া হাতে নিয়ে বন্ধুর সামনে দাঁড়ান তাহলে তার মন প্রাণ মাধুর্যতায় ভরে ওঠবে।

কিনতে ক্লিক করুনকিনতে ক্লিক করুনফুলের কদর দিন দিন বাড়ছে। আর সেই কদরের জোগান দিতে শুধু রাজধানী ঢাকার অভিজাত বিপণি বিতানেই নয়, দেশের প্রায় প্রত্যেক জেলা শহরে এখন রয়েছে একাধিক ফুলের দোকান। দেশের সবচেয়ে বড় ফুলের বাজার বসে রাজধানীর শাহবাগে। রাজধানীর উল্লেখযোগ্য ফুলের দোকান রয়েছে রাজধানী সুপার মার্কেট, হাইকোর্টের সামনে, নিউমার্কেট, আসাদ গেট, ধানমন্ডি সাতমসজিদ রোড, বনানী, গুলশান ১, গুলশান ২, মিরপুর ১০ নম্বর গোলচক্কর ও বেইলি রোডসহ অভিজাত মার্কেট। এছাড়াও খামারবাড়ীতেও প্রতিদিন সকালেই ফুল বিক্রি হয়।

কিনতে ক্লিক করুনকিনতে ক্লিক করুনশত কর্মব্যস্ততার মাঝে যারা ফুলের দোকানে গিয়ে ফুল কিনতে পারছেন না তারা অনলাইনে আজকের ডিল থেকেই নিয়ে নিতে পারেন তরতাজা ফুল। শুধুমাত্র ঢাকা শহরের মধ্যে যারা আছেন তারা তরতাজা ফুল কিনতে এখানে ক্লিক করুন

*ফুল* *স্মার্টশপিং* *ফ্রেন্ডশিপডে* *বন্ধুদিবস*

মাসুম: একটি বেশব্লগ লিখেছে

ফ্রেন্ডশিপ যেভাবেই গড়ে উঠুক না কেন ফেসবুকের ফ্রেন্ডশিপ মানে বুঝেছি জোর করে বেধে রেখে (মানে ট্যাগ করে) লাইক কমেন্ট বাড়ানো!(ভেঙ্গানো২)(শয়তানিহাসি) wink emoticon tongue emoticon 
একটা পুরনো কথা আছে-- দুইজনে বন্ধুত্ব আর তিনজনে কলহ! সুতরাং উপরের বাক্যকে অর্থমন্ত্রীর কথায় বলতে পারি>> অল আর বোগাস (ভেঙ্গানো)(খুশী২)wink emoticon grin ইমোটিকন 
ফেসবুকে বন্ধুত্বের (এড ফ্রেন্ড) এর সংখ্যা ৫০০০! যদিও সেটা ফ্রেন্ডের প্রকৃত সংগা কে মূল্যায়িত করেনা! তবুও আমরা দিনকে দিন যেহেতু কৃত্রিম হয়ে যাচ্ছি আর প্রকৃত সামাজিকতা ছেড়ে ভার্চুয়ালে, সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে কৃত্রিমভাবে সামাজিক হবার চেষ্টা করছি সেহেতু সে হিসেবে বন্ধুত্বের সংগাও পাল্টে গেছে এবং যাবে বৈ!

যাক গে! ফেসবুক হলো ভার্চুয়াল আর পাবলিক ডায়েরি! সেই ডায়েরিতে কে কে কার কার দেয়া গোলাপের পাপড়ি রাখবে সেটা তাদের ব্যাপার! তবে এই কৃত্রিম বন্ধুত্বের মাঝে আমি আমার শৈশবের বন্ধুদের মিস করেছি, করিই বটে! সেটা বিশেষত সিক্স সেভেনে পড়াকালীন সময়ের বন্ধুত্বকে ! আমি মনে করি ওই সময়েই বন্ধুত্ব বরং খাটি থাকে, প্রেমিক প্রেমিকা নিয়ে কোনো পিছুটান থাকেনা, এমনকি মা বাবার সাবধানতার বাণীও খুব কম থাকে এবং অবশ্যই সেই আবহটা উন্মুক্ত গ্রামে হতে হবে! এই ইট পাথরের শহরে সম্ভব না! ইচ্ছেমত স্কুল পালিয়ে, ক্লাস ফাকি দিয়ে, টিফিনেই পালানো, পাশের আখ খেতে হামলা, কোথাও বরই এর বাগানে ঝাকে ঝাকে ঢিল মারা, খেজুর রসের ভাড়ে পাঠকাঠি নিয়ে চুমুক দিয়ে রস শেষ করা, কেবল খোসা শক্ত হওয়া, আটি শক্ত হওয়া আমের দিকে ঢিল ছোড়া...ঝুম বৃষ্টিতে ফুটবল খেলা, তীব্র গরমে বড়দের বারণ তোয়াক্কা না করেই ক্রিকেট খেলা, নদীর ধারে গিয়ে ঢিল ছুড়ে হাতের শক্তি পরীক্ষা করা, আরো কত কিছু....(গ্যাংনাম)(মামাকিদেখলাম)
জানি সেদিন গুলো স্মৃতির পাতায় আলাদা আসন গেড়ে থাকবে, ফিরে পাবোনা বাস্তবের ভিতেই, তবুও ফিরে পেতে ইচ্ছে জাগবে সেই আবহাওয়ায়, বৃষ্টি বাদলে, নস্টালজিক করে দেবে অকারন, কখনো বা আনমনে আকাশপানে চেয়ে দেখব, চোখের আকাশে চিলের মত উড়তে থাকবে সব অমলিন স্মৃতি গুলো! সত্যি আজীবন মিস করে যাব সেই সময়গুলো, আজীবন! frown emoticon (মনখারাপ)(কান্না)
সেই সময় গুলো অমলিন থাকুক, চিরকাল উড়ুক স্মৃতির আকাশপানে, কখনো বা সাদা মেঘ হয়ে, সাদা বক হয়ে, আর সেই বন্ধু গুলো হোক অমর, ওদের ভবিষ্যত হোক শুভ!! (হার্ট)(হার্ট)

*দুখোব্লগ* *ছেলেবেলার-বন্ধুত্ব* *ফ্রেন্ডশিপডে*

শাকিল: কিছু আলো বিবর্ণ, কিছু আধার অনন্ত, কিছু কষ্ট ফেরারী, কিছু আশা অপূর্ণ, কিছু সম্পর্ক অবিনস্সর.... যেমন ...... বন্ধুত্ব. সাদা-কালো লাইফে এর চেয়ে বেশি সুখের আর কি বা হতে পারে .......

*ফ্রেন্ডশিপডে*

জয়া হাসান: হ্যাপি বন্ধু দিবসের শুভেচ্ছা সবাইকে (খুকখুকহাসি)

*ফ্রেন্ডশিপডে*

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

QA

★ ঘুরে আসুন প্রশ্নোত্তরের দুনিয়ায় ★