মোবাইল কভার

মোবাইলকভার নিয়ে কি ভাবছো?

শপাহলিক: একটি বেশব্লগ লিখেছে

স্মার্টফোনের কভারে এখন পাওয়া যাবে মিনিওন, হ্যালো কিটি কিংবা ফুল-পাথরের নানা নকশা। পছন্দের ফোন কিনলেই চলছে না, এর সঙ্গে অনেকেই ব্যবহার করছেন বাহারি সব কভার। অনেকে তো পোশাকের রঙের সঙ্গে মিলিয়ে রাখেন আলাদা কভার। শুধু ফোনটা ভালো রাখার প্রয়োজনেই কভার ব্যবহার হচ্ছে না। ফ্যাশনেরও অনুষঙ্গ হয়ে উঠেছে এই স্মার্টফোন কভারগুলো।
 
ফ্লিপ বা ব্যাক কভার—দুরকমই পাবেন বাজারেহাতের মুঠোয় থাকা স্মার্টফোনটির যত্ন-আত্তির কথা এলে প্রথমেই আসবে এর কভারের প্রসঙ্গ। কভার ব্যবহার করে অনেক দিন ভালো রাখা যায় স্মার্টফোন। অনেকের ধারণা, কভার ব্যবহার করলে স্মার্টফোনটির মূল ডিজাইনই বোঝা যায় না, তা কিন্তু ঠিক নয়। বাজার ঘুরে দেখলে বুঝবেন, শখের ফোনটির সৌন্দর্য বরং আরও বাড়িয়ে তুলবে এই কভারগুলো।
 
 
 
 
কিছুদিন পরপর মোবাইলের কভার পরিবর্তনের ফলে স্মার্টফোনটিকে নতুন রূপ দেওয়া সম্ভব। বাজারে নানা রঙের ও বিভিন্ন নকশার মোবাইল কভার পাওয়া যায়। সাধারণত মোবাইল কভার দুই ধরনের হয়ে থাকে। ব্যাক কভার ও ফ্লিপ কভার। ব্যাক কভার মোবাইলের পেছনের দিকটায় লাগানো হয়। আর ফ্লিপ কভার মোবাইলের সামনে ও পেছনে দুই অংশেই থাকে। মোবাইলের জন্য আছে চামড়া, প্লাস্টিক ও রাবারের কভার। 
 
 আরও রয়েছে বাহারি সব পাথরের নকশা, আবার কোনোটার নকশায় দেখা যায় কার্টুন ছবি-সংবলিত থ্রিডি কভার। 
ফোনের ব্র্যান্ড অনুযায়ী কভার পাওয়া যায়।
নিজস্ব মোবাইল ফোন সেটটির কভার না পেলে অন্য মোবাইলের কভার জোর করে লাগানো ঠিক নয়।
তাই বিভিন্ন দোকানে ঘুরে অথবা অনলাইনের মাধ্যমে নিজের পছন্দমতো দেখে কভার কেনা উচিত।
 
 
দরদাম: 
বাহারি রকমের কভারগুলোর দাম পড়বে ২৫০ থেকে ৩ হাজার টাকার মধ্যে।
অ্যাপল: অ্যাপলের আইফোনের ব্যাক কভার পাবেন ৩০০ টাকা থেকে ১ হাজার ২০০ টাকায়। ফ্লিপ কভারগুলো পাবেন ৫০০ থেকে ২ হাজার টাকার মধ্যে। নানা নকশার ব্যাক ও ফ্লিপ কভার পাবেন ৫০০ থেকে ২ হাজার ৫০০ টাকার মধ্যে।
 
.স্যামসাং: এই ব্র্যান্ডের স্মার্টফোনের ব্যাক কভার পাওয়া যাবে ২৫০ থেকে ১ হাজার টাকায়। ফ্লিপ কভার পাবেন ৪০০ থেকে ১ হাজার ২০০ টাকায়। নকশা করা কভার ৫০০ থেকে ২ হাজার ৮০০ টাকায়।
 
নকিয়া: নকিয়ার ব্যাক কভারগুলো পাওয়া যাবে ২৫০ থেকে ৮০০ টাকার মধ্যে। লুমিয়া সিরিজের যেকোনো মডেলের কভার পাবেন ৩০০ থেকে ১ হাজারের মধ্যে।
 
সনি: এই ব্র্যান্ডের ফোনের কভার পাবেন ২৫০ থেকে ৫০০ টাকার মধ্যে। ফ্লিপ কভার পাবেন ৩০০ থেকে ১ হাজার টাকায়। বিভিন্ন সব আকর্ষণীয় নকশা করা কভারের দাম পড়বে ৫০০ থেকে ১ হাজার ৫০০ টাকার মধ্যেই।
 
এ ছাড়া এইচটিসি, সিম্ফোনি, ওয়ালটন—এসব স্মার্টফোনের ফ্লিপ কভার পাবেন ২০০ থেকে ৪০০ টাকায়। ব্যাক কভার পাবেন ১৫০ থেকে ৩৫০ টাকার মধ্যে।
 
কোথায় পাবেন
বিভিন্ন দোকানে ঘুরে অথবা অনলাইনের মাধ্যমে নিজের পছন্দমতো কভার ব্যবহার করতে পারেন। রাজধানীর হাতিরপুলের ইস্টার্ন প্লাজা ও মোতালেব প্লাজায়। এ ছাড়া ঢাকার বসুন্ধরা সিটি শপিং কমপ্লেক্সের নিচতলা ও সাততলায় এবং যাঁরা আইফোন ব্যবহার করেন, তাঁরা ঘুরে আসতে পারেন এই মার্কেটের অ্যাপল গ্যালারি থেকেও। ঢাকার এলিফ্যান্ট রোডের ইস্টার্ন মল্লিকা ও মাল্টিপ্ল্যান সেন্টার এবং ধানমন্ডির সীমান্ত স্কয়ার, প্রগতি সরণি যমুনা ফিউচার পার্কের চতুর্থ তলায় নানা দোকানে পাওয়া যাবে মোবাইলের কভার। অনলাইনে অর্ডার দিয়ে কিনতে চাইলে ঘুরে আসুন এই লিংক থেকে। 
*কভার* *মোবাইলকভার* *ট্যাব-কভার* *স্মার্টশপিং*

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

QA

★ ঘুরে আসুন প্রশ্নোত্তরের দুনিয়ায় ★