রেইন কভার

রেইনকভার নিয়ে কি ভাবছো?

আমানুল্লাহ সরকার: একটি নতুন প্রশ্ন করেছে

 ট্রাভেল ব্যাগের রেইন কভার ঢাকার কোথায় পাব?

উত্তর দাও (০ টি উত্তর আছে )

*রেইনকভার*

শপাহলিক: একটি বেশব্লগ লিখেছে

এখন গ্রীষ্মকাল। তাই কখনো কড়া রোদ আবার কখনোবা বৃষ্টি। আকাশে সূর্যের হাসি দেখে ছাতার তোয়াক্কা না করেই বেরিয়েছেন ঘরের বাইরে, হঠাত্ এক পসলা বৃষ্টি ভিজিয়ে দিতে পারে আপনাকে। আর এই বৃষ্টিতে ভিজলে ঠাণ্ডা কিংবা জ্বর বাঁধানোর পাশাপাশি নষ্ট পারে প্রিয় পোশাকটিও, সাথে থাকা ব্যাগটি। আর কাদা মাখামাখি হয়ে বিপত্তির মুখোমুখি পড়তে হয় অনেককেই। পোশাকটি বাসায় ফিরে দ্রুত শুকনো গেলেও ব্যাগটিকে শুকানো কিন্তু কষ্টসাধ্য ব্যাপার হয়ে দাড়ায়, আসলে একটু মোটা তন্তু বা মোটা বুনটের কাপড় বলে শুকাতে দেরি হয় । তারমধ্যে আবার ব্যাগে থাকা দরকারী জিনিসপত্র, বইখাতা ভিজে একাকার, সব মিলে যাচ্ছে তাই অবস্থ্যা। তাই বলে কি বৃষ্টির ভয়ে ঘরে বসে থাকতে হবে? না, তা নয়। বরং বৃষ্টিকে মানিয়েই আপনাকে প্রয়োজনে বাইরে বের হতে হবে। 

কিনতে ক্লিক করুন 

বৃষ্টির দিনগুলোতে দামি চামড়া কিংবা পুঁথি, স্টোনখচিত ব্যাগ ব্যবহার না করাই উত্তম। বরং বৃষ্টি উপযোগী ব্যাগ ব্যবহার করাই বুদ্ধিমানের কাজ। বাজারে রেক্সিন, সিনথেটিক ও কাপড়ের ব্যাগ পাওয়া যায়। এ ব্যাগগুলো পাবেন নিউমার্কেট, ইস্টার্ন প্লাজা, মৌচাক মার্কেট, মেট্রো শপিংমল, রাপা প্লাজা প্রভৃতি মার্কেটে, এছাড়া অনলাইন শপিং মল আজকের ডিলেও রয়েছে ব্যাগের দারুন সব কালেকশন। মৌচাক মার্কেটের রহিম জেনারেল স্টোরে পানিরোধক নানান মোড়ক পাওয়া যায়। এসব কিনলে বইখাতা, কাগজ, মোবাইল, ফোন ও ক্যালকুলেটর পানি থেকে বাঁচানো যায়। 

কিনতে ক্লিক করুন

বৃষ্টির সময় রাস্তায় বা চলতি পথে বৃষ্টির পানি বা কাদাপানির ঝক্কিতে যেন আপনার মূল্যবান ব্যাগটির বারোটা বেজে না যায় সে জন্য ব্যাগের সুরক্ষায় ব্যাবহার করুন রেইন ও ডাস্ট কভার।এছাড়া ছাতার কাপড়ে তৈরি বলে এগুলোতে ভালো ফল পাওয়া যাবে। সেই সাথে রেকসিন, প্যারাস্যুট কাপড়ের ব্যাগ ব্যবহার করা যেতে পারে। ভাজ করে রেখে দিবেন ব্যাগের ভেতরে, বৃষ্টির সময় প্রয়োজন পড়লেই ব্যাস বের করে ফেলবেন। বর্ষাকালে যেহেতু বৃষ্টির ঠিক ঠিকানা নেই, তাই যখনই বের হোন না কেন, প্রয়োজনীয় কাগজপত্র আলাদা প্লাস্টিকের ব্যাগে রেখে দিন। ক্যালকুলেটর কিংবা মোবাইল ফোন রাখার জন্য পানিরোধক মোড়ক আগেই কিনে রাখুন। 

 কিনতে ক্লিক করুন

রেইন কভার কোথায় পাবেন: ২ টা অপশন রয়েছে এই ব্যাগ সংগ্রহে রাখবার জন্য 

নিজেই বানিয়ে নিন : প্রথম কাজ ওয়াটার প্রুফ কাপড় কেনা । সোজা চলে যান সদরঘাট টার্মিনাল । টার্মিনালের উল্টা দিকে দেখবেন এক তোলা হকারস মার্কেট । ভিতরে বিশাল , বাইরে থেকে দেখলে মনে হয় টং দোকান । ভিতরে সব কিছুই পাবেন , গজ কাপড় যেখানে বিক্রি করে সেই অংশে চলে যান । ওয়াটার প্রুফ কাপড় খোঁজেন । সব দোকানেই পাবেন । মানের উপর নির্ভর করে প্রতি গজ ৭০ - ১৫০ টাকা আছে ।  সাথে অবশ্যই আপনার ব্যাগ / ব্যাগপ্যাকটি নিয়ে যাবেন । কাপড়ের মাপের জন্য। তবে যত বড়ই ব্যাগ হোক ১ গজের বেশি লাগবে না । এই কাপড় গুলোর বহর বেশ বড় । ইসলামপুরেও পাবেন কাপড় ।সবচেয়ে ভালো এলাকার দর্জির কাছে যান । অনেক খানে দেখবেন রাস্তার পাশে দর্জি বসে। কিভাবে বানাতে চান, তার একটা স্যাম্পল ছবি দেখিয়ে দিন, দর্জিরা খানিকক্ষণের মধ্যেই বানিয়ে দেবে। তবে বানিয়ে নেয়ার সুবিধা হলো এতে করে আপনি আপনার মন পছন্দ অনুযায়ী শেপে এবং ডিজাইনে বানিয়ে নিতে পারবেন। তবে এর জন্য একটু বেশি টাকা গুনতে হবে। সব মিলে ৪০০ / ৫০০ টাকা তো লাগবেই। 

যাদের সময় সল্পতা রয়েছে তারা রেডিমেট কিনে নিতে পারেন আজকের ডিল থেকে l ওদের কাছে ২০০ থেকে ৪৫০ টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন। তিনটি ছবি দেয়া হলো, সেগুলো ক্লিক করে বিস্তারিত জেনে নিন এবং কিনতে চাইলে অর্ডার করুন। 

 

*রেইনকভার* *বর্ষাকাল* *ব্যাগ*

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

QA

★ ঘুরে আসুন প্রশ্নোত্তরের দুনিয়ায় ★