শপাহলিক: একটি বেশব্লগ লিখেছে

ঈদে সবকিছুই নতুন চাই। পোশাক-আশাকের বাইরেও ঈদে ফ্যাশন বাড়িয়ে দেয় ছোট খাট প্রয়োজনীয় সব অনুসঙ্গ। ফ্যাশনের গণ্ডি এখন পোশাক-আশাক ছাড়িয়ে পৌঁছে গেছে হাতের ব্রেসলেট, চোখের চশমা, গলার বিশেষ মালা, এমনকি পকেটের মানিব্যাগ পর্যন্ত। বিশেষ করে মানিব্যাগের ফ্যাশন বর্তমান সময়ে জমে উঠেছে দারুণভাবে। তাছাড়া ঈদে নতুন টাকা নতুন মানিব্যাগ ভাবই আলাদা। মানিব্যাগের ফ্যাশনে মজেনি এমন তরুণ-তরুণী এখন খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। এখন আর শুধু টাকা রাখার জন্যই মানিব্যাগ ব্যবহার করা হয় না। সুন্দর ও আধুনিক একটি মানিব্যাগ ব্যক্তিকে যেমন ফ্যাশনেবল করে তোলে, তেমনি প্রকাশ করে মর্যাদাপূর্ণ আভিজাত্য। সেই সঙ্গে সহজে বহনযোগ্য মানিব্যাগে টাকা-পয়সা নিরাপদ তো থাকেই, সঙ্গে রাখা যায় প্রয়োজনীয় ভিজিটিং এবং ডেবিট ও ক্রেডিট কার্ডও।

তরুণ কিংবা বয়স্ক সবাইকে এখন নানা প্রকৃতির মানিব্যাগ ব্যবহার করতে দেখা যায়। মানিব্যাগগুলোর মডেল নির্ধারিত হয় ডিজাইন, রঙ ও কাঁচামালের ভিন্নতায়। বেশির ভাগ মানিব্যাগ তৈরি হয় চামড়া দিয়ে। সেই সঙ্গে রেকসিনের সুনিপুণ ব্যবহারও থাকে। বাজারে আরও পাওয়া যায় বিভিন্ন প্রাণীর চামড়া, আর্টিফিশিয়াল লেদার ও খাঁটি চামড়ার মানিব্যাগ। এছাড়া কিছু মানিব্যাগে আজকাল নামি ব্র্যান্ডের ধাতব, বিভিন্ন লোগোও সংযুক্ত করতে দেখা যায়, যার মাধ্যমে মানিব্যাগগুলো দেখতে দৃষ্টিন্দন হয়ে ওঠে। সুন্দর ও আকর্ষণীয় মানিব্যাগ এখন অনেকটাই শিল্পের মতো।


ছেলে ও মেয়েদের জন্য ভিন্ন ভিন্ন মডেলের মানিব্যাগ পাওয়া যায়। যেমন ছোট, মাঝারি, বড় ও লম্বাটে মানিব্যাগ। ব্র্যান্ডভেদে এগুলোর আকার আলাদা আলাদা। ছোট ব্যাগগুলো সাধারণত ছেলেরাই ব্যবহার করে। দুই স্তরবিশিষ্ট ব্যাগগুলোতে অল্প কাগজের নোট, ছবি ও ভিজিটিং কার্ড রাখা সুবিধাজনক।


তুলনামূলক অনেক চেম্বারবিশিষ্ট মানিব্যাগের প্রচলন বেশি। এটাকে বলা হয় ফোল্ডিং মানিব্যাগ। বাজারে ট্রাই ফোল্ডিং মানিব্যাগও আছে। আকারে খুব বড় না হলেও এগুলো তিনটি ভাঁজ করা যায়। মানুষের নানারকম চাহিদার উপর ভিত্তি করে বিভিন্ন রঙের মানিব্যাগ দেখা যায়। সবচেয়ে জনপ্রিয় হল কালো ও কফি রঙেরগুলো। সেই সঙ্গে লালচে, গ্রে ও গাঢ় অফহোয়াইট রঙের মানিব্যাগও প্রচুর বিক্রি হয়। ছেলেদের মানিব্যাগ দুই-তিনটি রঙের হলেও মেয়েদের মানিব্যাগে রঙের বৈচিত্র্য লক্ষ করা যায়। ফলে বাজার ঘুরে দেখেশুনে বাছাই করে সুন্দর একটি মানিব্যাগ আজই কিনে ফেলুন। নান্দনিক ডিজাইনের অভিজাত মানিব্যাগে বাড়িয়ে নিন নিজের ব্যক্তিত্ব!

পাবেন কোথায় ও দরদাম :

ব্র্যান্ড ও নন-ব্র্যান্ড দুই রকম মানিব্যাগই পাওয়া যায় বাজারে। ব্র্যান্ডের মানিব্যাগের জন্য যে কোনো শপিংমলে যেতে পারেন। বড় ফ্যাশন হাউসগুলোও এখন নিজেদের সংগ্রহে মানিব্যাগ রাখছে। চাইলে সেখান থেকেও বেছে নিতে পারেন নিজের পছন্দের মানিব্যাগ। দেশী ব্র্যান্ডের মানিব্যাগগুলোর দাম পড়বে ৩০০ থেকে ২০০০ টাকা পর্যন্ত। আর বিদেশী ব্র্যান্ডের মানিব্যাগের দাম পড়বে ৫০০ থেকে ৪০০০ টাকা পর্যন্ত। অনলাইন প্লাটফর্ম থেকেও মানিব্যাগ কিনতে পারেন। অনলাইনে ঘরে বসে মানিব্যাগ কিনতে এখানে ক্লিক করুন

*ওয়ালেট* *ঈদফ্যাশন* *স্মার্টশপিং*

পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?


অথবা,

এক্ষনি একাউন্ট তৈরী কর

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত