Preview
প্রশ্ন করুন

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

সাকিব রহমান চাতক  আমি কে?আমি সেই যে প্রতিনিয়ত মানুষ হবার স্বপনে বিভোর থাকি।আমি সে ই যার হৃদপিন্ড কথা বলে।

জ্ঞানী

থ্যালাসেমিয়া একটি বংশগত রোগ। এই রোগ শরীরে রক্তস্বল্পতা সৃষ্টি করে যা রক্তের মধ্যে ত্রুটিযুক্ত হিমোগ্লো-বিনের জন্য হয়ে থাকে। হিমোগ্লোবিন মানুষের রক্তের খুব দরকারি একটি উপাদান। এটি রক্তের একটি বিশেষ রঞ্জক পদার্থ যা শরীরের বিভিন্ন অংশে অক্সিজেন পরিবহণ করে। স্বাভাবিক মানুষের রক্তে হিমোগ্লোবিন সাধারণত দুটি আলফা ও দুটি বিটা চেইন বহন করে। এই দুটি চেইনের যেকোনো একটি পরিমাণে কম থাকলে সৃষ্টি হয় থ্যালাসেমিয়া রোগের। দু’রকমের থ্যালাসেমিয়া: থ্যালাসেমিয়া দু’টি প্রধান ধরনের হতে পারে, আলফা থ্যালাসেমিয়া ও বেটা থ্যালাসেমিয়া। যাদের হিমোগ্লোবিনে আলফা অথবা বিটা চেইন পরিমাণে কম থাকে, তাদের বলা হয় আলফা অথবা বিটা থ্যালাসেমিয়া। আলফা থ্যালাসেমিয়ার ক্ষেত্রে রোগের উপসর্গ মৃদু বা মাঝারি প্রকৃতির হয়। অন্যদিকে বেটা থ্যালাসেমিয়ার ক্ষেত্রে রোগের তীব্রতা বা প্রকোপ অনেক বেশি; এক-দুই বছরের শিশুর ক্ষেত্রে ঠিকমত চিকিত্সা না করলে এটি শিশুর মৃত্যুর কারণ হতে পারে।রক্তের লোহিত কণিকার আয়ুকাল তিন মাস। লোহিত কণিকা অস্থিমজ্জায় অনবরত তৈরি হচ্ছে এবং তিন মাস শেষ হলেই প্লীহা-এ লোহিত কণিকাকে রক্ত থেকে সরিয়ে নিচ্ছে। থ্যালাসে-মিয়ায় আক্রান্ত রোগীর লোহিত কণিকার আয়ুকাল অনেক কমে যায়। তাদের হিমোগ্লোবিন ঠিকমতো তৈরি না হওয়ায় লোহিত কণিকাগুলো সহজেই ভেঙে যায় এবং অস্থিমজ্জার পক্ষে একই হারে লোহিত কণিকা তৈরি সম্ভব হয়ে ওঠে না। ফলে একদিকে যেমন রক্তশূন্যতা সৃষ্টি হয়, অন্যদিকে প্লীহা আয়তনে বড় হতে থাকে। পরবর্তী সময়ে অতিরিক্ত আয়রণ জমা হয়ে হৃদপিন্ড, প্যানক্রিয়াস, যকৃত, অন্ডকোষ ইত্যাদি অঙ্গের কার্যক্ষমতাকে নষ্ট করে দেয়।বাংলাদেশে প্রতি হাজারে ০৭ জন লোক থ্যালাসেমিয়ার ক্যারিয়ার

জান্নাতুল ফিরদৌস  মানসিক বয়স আনুমানিক ৭০ এর কাছাকাছি | পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ বুদ্ধিমান মানুষদের একজন |

মহাগুরু

একজন ইতিমধ্যে থ্যালাসেমিয়া কি জিনিস তা নিয়ে ব্যাখা করেছে (সাকিব রহমান চাতক) কাজেই, আমি বরং ২য় প্রশ্নের উত্তর দেয়ার চেষ্টা করি ! প্রশ্নটা সম্ভবত এরকম হবে কোনো দম্পতির ১ম সন্তানের থ্যালাসেমিয়া থাকলে কি ২য় সন্তানের ও হবে ? বা সম্ভাবনা রয়েছে ? যদি তাই হয় তাহলে এর আগে কিছু বলতে চাই তাহলো- সন্তানের এই রোগ হওয়ার জন্য কিন্তু বাবা ,মা ২ জনকেই আলাদা আলাদা ভাবে এই রোগের বাহক হতে হবে ! (থ্যালাসেমিয়ার বাহক আর থ্যালাসেমিয়া রোগ ২টা কিন্তু ভিন্ন ,বাহক মানে সে এই রোগে আক্রান্ত না ,তবে, ওর বংশধরের এই রোগ হতে পারে !) যদি ২ জনই বাহক হন তাহলে সন্তানের থ্যালাসেমিয়া হতে পারে আর ২ জনের ১জন হলে হওয়ার সম্ভাবনা নেই ! আর ২ জনই যদি বাহক হন তাহলে ১ম সন্তানের এই রোগ হওয়ার সম্ভাবনা ২৫% ! গবেষকদের মতে, ২ জনই এই রোগের বাহক হলে প্রতি ৪ জনের মধ্যে গড়ে একজনের এই থ্যালাসেমিয়া রোগ হতে পারে ,২ জন এর বাহক হতে পারে আর শেষ ১ জন হতে পারে সম্পূর্ণ সুস্থ ! কাজেই, সেই হিসেবে বলা যায় যদি, ১ম সন্তান থ্যালাসেমিয়াতে আক্রান্ত হয় তাহলে এর পরবর্তী সন্তানের এই রোগ হওয়ার সম্ভাবনা তেমন না থাকলেও এর বাহক হওয়ার সম্ভাবনা প্রকট ! কাজেই, কোনো নতুন দম্পতির উচিত বিয়ের আগেই নিজের রক্ত পরীক্ষা করে জেনে নেয়া তিনি এর বাহক কিনা ! আর এই পরীক্ষার একটা গালভরা নাম রয়েছে তাহলো- "হিমোগ্লোবিন ইলেক্ট্রোপ্রোসিস" এইটা মোটামুটি অনেক হাসপাতালেই করা হয়ে থাকে কাজেই, খোজ নিয়ে দেখা যেতে পারে I ধন্যবাদ

রিংকু  প্রত্যেক ক্রিয়ারই একটি সমান ও বিপরীত প্রতিক্রিয়া রয়েছে :P

মহাগুরু

থ্যালাসেমিয়া (ইংরেজি: Thalassemia) একটি বংশগত রক্তের রোগ। এই রোগে রক্তে অক্সিজেন পরিবহনকারী হিমোগ্লোবিন কণার উৎপাদনে ত্রুটি হয়। থ্যালাসেমিয়া ধারণকারী মানুষ সাধারণত রক্তে অক্সিজেনস্বল্পতা বা অ্যানিমিয়াতে ভুগে থাকেন। অ্যানিমিয়ার ফলে অবসাদগ্রস্ততা থেকে শুরু করে অঙ্গহানি ঘটতে পারে। থ্যালাসেমিয়া দুইটি প্রধান ধরনের হতে পারে: আলফা থ্যালাসেমিয়া ও বেটা থ্যালাসেমিয়া। সাধারণভাবে আলফা থ্যালাসেমিয়া বেটা থ্যালাসেমিয়া থেকে কম তীব্র। আলফা থ্যালাসেমিয়াবিশিষ্ট ব্যক্তির ক্ষেত্রে রোগের উপসর্গ মৃদু বা মাঝারি প্রকৃতির হয়। অন্যদিকে বেটা থ্যালাসেমিয়ার ক্ষেত্রে রোগের তীব্রতা বা প্রকোপ অনেক বেশি; এক-দুই বছরের শিশুর ক্ষেত্রে ঠিকমত চিকিৎসা না করলে এটি শিশুর মৃত্যুর কারণ হতে পারে। বিশ্বে বেটা থ্যালাসেমিয়ার চেয়ে আলফা থ্যালাসেমিয়ার প্রাদুর্ভাব বেশি। আলফা থ্যালাসেমিয়া দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া ও চীনের সর্বত্র এবং কখনও কখনও ভূমধ্যসাগরীয় ও মধ্যপ্রাচ্যের লোকদের মধ্যে দেখতে পাওয়া যায়। প্রতিবছর বিশ্বে প্রায় ১ লক্ষ শিশু থ্যালাসেমিয়া নিয়ে জন্মগ্রহণ করে।


অথবা,