Preview
প্রশ্ন করুন
রিলেটেড কিছু বিষয়

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

( ১২ টি উত্তর আছে )

( ২৩,৬৯৬ বার দেখা হয়েছে)

ইমরান  ভালো মানুষ মনে হয়... কনফিউসন এ আছি...

মহাগুরু

সাস্থ্য এ সকল সুখের মূল... সাস্থ্য ভালো থাকলে মন এমনিতে ই ভালো থাকে যদি অন্য কোনো পারিপার্শিক কারণ মনের উপর হানা না দেয়... সাস্থ্য ভালো রাখার জন্য নিয়মিত পরিমান মত খেতে হবে,সুষম খাবার এর একটি তালিকা তৈরী করে নিয়মিত খান,পরিমিত ঘুমান,প্রতিদিন সময় করে হাটাহাটির অভ্ভাস করুন এবং হালকা বেয়াম করুন... প্রচুর পরিমানে পানি খান, প্রাণ খুলে হাসুন...চাপ মুক্ত থাকার চেষ্টা করুন... মাঝে মাঝে প্রিয় কোনো মানুষ কে নিয়ে কথাও থেকে বেরিয়ে আসুন... মনে হচ্ছে অনেক কাজ?? শরীর আর মন ভালো থাকার সাথে নো কম্প্রমায়স... তাই একটু সচেতন তো হতে ই হবে...:D

Abu Sayeed Mohammed Shohel  স্বপ্ন রাজ্যের রাজপুত্র আমি ..

বিশারদ

স্বাস্থ্য ও মন ভালো ভালো রাখার উপায় কিন্তূ উপরে সবাই সুন্দর করেই লিখে দিয়েছেন আপনার জন্য..এর পর ও আমি একটু না বললে কি হয়..হাহাহা..আমি বলব আপনি যথা সময়ে খাবার খাবেন.মানে সকালের নাস্তা আপনাকে খেতে হবে ৭/৮ টার মধ্যেই.দুপরের খাবার খাবেন সর্বোচ্চ ১ টার মধ্যে.সন্ধ্যার নাস্তা করবেন ৫ টার মধ্যে.এবং রাতের খাবার পরিমানের তুলনায় হালকা কম খাবেন কিন্তূ ১০ টার মধ্যেই আপনাকে (সাপার) রাতের খাবার খেতে হবে.এতক্ষণ বললাম খবরের কথা..আপনি যদি এই নিয়মে চলেন তাহলে মন তো ভালো হবেই.কারণ মন ভালো হওয়ার বা রাখার একমাত্র কারণ হলো সু-সাস্থ্য. মনে রাখবেন সাস্থ্য ভালো তো মন ভালো,সাস্থ্য ভালো নেই তো মন ও ভালো নেই. আমি জানি হয়ত আমার উত্তর পড়ে আপনার এমন মনে হবে যে..আপনি কোনো ডাক্তার এর চেম্বারে গিয়ে পরামর্শ নিচ্ছেন.এমন টা মনে হলেও কিন্তূ পরামর্শ গুলো অনেক ভালো..

এস এম ফয়সাল কবির  এক বাক্যে!! কি করে সম্ভব? মিয়া মজা লন নাকি আমার লগে?

গুরু

মন ভাল থাকলে স্বাস্থ এমনিতেই ভাল হয়ে যায়....................... তাই মন ও স্বাস্থ ভাল রাখার কিছু টিপস দেওয়া হল.............. ১. নেতিবাচক চিন্তা করার বদলে ইতিবাচক চিন্তা করুন। ২. বিপদে মনোবল হারাবেন না। ৩. সফল ব্যক্তিদের জীবনী পড়ুন। ৪. প্রিয়জনের সঙ্গে কাটান। ৫. পরিবার বা বন্ধুদের সাথে বেড়াতে যান। ৬. নিজেকে কখনোই দুঃখী মানুষ ভাববেন না। ৭. ভালো কোনো গল্পের বই পড়ুন, ভালো চলচ্চিত্র দেখুন। ৮. শিল্প-সাহিত্যবিষয়ক প্রদর্শনী দেখতে যান। ৯. প্রিয়জনদের সাথে যোগাযোগ করুন। তাদের উপহার দিন। ১০. সুখ স্মৃতি স্মরণ করুন। ১১. প্রিয় বন্ধুর সঙ্গে কষ্ট ভাগ করুন। ১২. মুক্ত বাতাসে, খোলা আকাশের নিচে হাঁটুন। ১৩. ছুটির দিনে দূরে কোথাও পিকনিকে যান বা বেড়াতে যান। ‌১৪. সহকর্মীদের সাথে সুসম্পর্ক গড়ে তুলুন। ১৫. অফিস বা পড়ার টেবিলে ছোট্ট ফুলদানিতে তাজা ফুল রাখুন। ১৬ কাজের মাঝে বিরতি দিন ১৭. নির্জনে কোনো এক স্থানে বসে ২০ থেকে ৩০ মিনিট নিয়মিত মেডিটেশন বা ধ্যান করুন। ১৮. দেহের ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখুন। ১৯. সুষম খাবার খান। ২০. সৃজনশীল কাজ করুন।

Aurpita Islam  মেহেদী পাতার রং.

গুরু

স্বাস্থ্য ও মন ভালো রাখতে ভালো রাখতে চান?আপনি নিয়মিত ঘুম এবং নিয়মিত খাবার খান.যেমন দৈনিক কম করে হলেও আপনাকে ৬/৭ ঘন্টা ঘুমাতে হবে এবং নিয়মিত ও পরিমান মত খবর খেতে হবে..

যারিন তাসনিম  সুকন্যা

মহাগুরু

স্বাস্থ্য ও মন ভালো ভালো রাখার প্রথম ও প্রধান উপায় হলো শারীরিকচর্চা l এটি আপনার শরীরকে ভালো রাখবে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না এবং মনকেও অনেক বেশি হালকা এবং ফুরফুরে আমেজ দেয় l

সূর্য চৌধরী  একা থাকলে সাহস লাগে।

জ্ঞানী

স্বাস্থ্য ও মন ভালো রাখতে ভালো রাখতে চান?আপনি নিয়মিত ঘুম এবং নিয়মিত খাবার খান.যেমন দৈনিক কম করে হলেও আপনাকে ৬/৭ ঘন্টা ঘুমাতে হবে এবং নিয়মিত ও পরিমান মত খবর খেতে হবে..

মিজানুর রহমান (মামুন)  আমার অন্তহীন অপেক্ষা...........

পন্ডিত

ডেইলি নামাজ এবং শারীরিকচর্চা করলে ১০০ % স্বাস্থ্য ও মন ভালো থাক বে .

অন্তহীন আবির  আমি যখন কিছু করি তখন তার মাজেই হারিয়ে যাই অন্তহীন ভাবে ...

জ্ঞানী

সাস্থ ভালো রাখার জন্য আপনাকে রীতিমত খাবার খেতে হবে.... আর মন ভালো রাখার জন্য কারো সাথে রাগ না করে তাকে ও বাজানোর চেষ্টা করুন এবং নিজেও একটু ছাড় দিন দেখবেন সব ঠিক হয়ে যাবে ...

রিংকু  প্রত্যেক ক্রিয়ারই একটি সমান ও বিপরীত প্রতিক্রিয়া রয়েছে :P

মহাগুরু

যে কাজ টা আপনাকে সবচেয়ে বেশি স্বাচ্ছন্দ প্রদান করে সেই কাজ টাই করুণ :) যেমন আমার মন ভালো না থাকলে আমি গান শুনি এবং সেই সাথে ছবি আঁকায় :)

Bashir Ahmed  Simple

জ্ঞানী

সবার সাথে ভালো ব্যবহার করুন। সঠিক ভাবে নিজের উপর অর্পিত দায়িত্ব্য পালন করুন। তাহলে ভালো ঘুম হবে এবং মন ভালো থাকবে।

মোঃআশিকুর রহমান  তবে ভালবাসা দাও,ভালবাসা নাও.

গুরু

১.নামাজ পরা ২.প্রতিদিন সুষম খাবার খাওয়া ৩.মন প্রফুল্ল রাখা ধন্যবাদ

Debopriya  সত্য সন্ধান করি.

গুরু

সকালে যোগ আসন করুন | ধ্যান করুন | ঘরের পুষ্টিকর খাবার খান | জল খান | হাসিখুসি থাকুন |বাইরের তেলের খাবার বেশি খাবেন না | এতে রক্ত পরিস্কার থাকবে |


অথবা,