Preview
প্রশ্ন করুন
রিলেটেড কিছু বিষয়

বেশতো সাইট টিতে কোনো কন্টেন্ট-এর জন্য বেশতো কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

কনটেন্ট -এর পুরো দায় যে ব্যক্তি কন্টেন্ট লিখেছে তার।

...বিস্তারিত

( ১৫ টি উত্তর আছে )

( ২৫,৬৬৫ বার দেখা হয়েছে)

বিডি আইডল  সব মানুষের মাঝে রয়েছে সম্ভাবনা...তাই স্বপ্ন দেখি অহর্নিশ

গুরু

কাপড়ে তেল, ঝোলের দাগ পড়লে তা শুষে নেওয়ার জন্য ব্যবহার করুন ট্যালকম পাউডার। প্রথমে কাপড়ের দাগের ওপর একটু বেশি করে ট্যালকম পাউডার দিয়ে শুকনো অবস্থায় ব্রাশ দিয়ে ঘষে নিন। ঘষলে হালকা তেল, ঝোলের দাগ উঠে যাবে। এরপর সাবান পানি দিয়ে ধুয়ে ফেললে পুরো দাগটাই চলে যাবে। সরাসরি সাবান-পানি দিয়ে ধুলে কাপড়ে লাল দাগ হয়ে যেতে পারে।  চা, কফির দাগ কাপড়ে লাগলে সঙ্গে সঙ্গেই পানি দিয়ে ধুয়ে ফেললে দাগ চলে যাবে। অথবা একটু তরল দুধ দিয়ে দাগের স্থানে ব্রাশ দিয়ে ঘষে নিন। এবার ধুয়ে ফেললে দাগ উঠে যাবে। অনেক সময় কাপড়ে চা-কফির অনেক পুরোনো দাগ পড়ে যায়। এ ক্ষেত্রে হাইড্রোজেন পার অক্সাইড দাগের স্থানে দিয়ে কিছুক্ষণ পর সাবান পানি দিয়ে ধুয়ে রোদে শুকাতে দিলে দাগ চলে যাবে।  কাপড়ের যে স্থানে হলুদ কিংবা মসলার দাগ লাগবে সে স্থানে লেবুর রস দিয়ে ঘষা দিয়ে সাবান পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে। তারপর কড়া রোদে শুকাতে দিতে হবে।

আড়াল থেকেই বলছি  সীমানাহীন গন্তব্যে এখনো হাঁটছি একাকিত্বের লাঠি হাতে ....

মহাগুরু

চা কফির দাগের জন্য .. প্রথমেই পানি দিয়ে দাগের অংশটুকু ধুয়ে নিতে হবে। যদি এতেও দাগ না উঠে তবে যে অংশে দাগ লেগেছে তা সারারাত ধরে ঠান্ডা দুধে ভিজিয়ে রাখতে হবে। পরদিন মৃদু ডিটারজেন্ট দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে। এরপর ভিনেগার ও অল্প ঠান্ডা পানি মিশিয়ে দাগে স্প্রে করে দিতে হবে। ১ চামচ বেকিং সোডা লাগিয়ে ভাল করে ঘষলে দাগ উঠে যাবে। সসের দাগ লাগলে .. প্রথমেই ঠান্ডা পানি দিয়ে জায়গাটা ধুয়ে নিতে হবে। এরপর সোডা বা একফালি লেবু দিয়ে জায়গাটা ভাল করে ঘষতে হবে। পানি দিয়ে ভাল করে ধুয়ে শুকাতে হবে। এতেও যদি দাগ না উঠে তবে হালকা গরম পানিতে আধা চা চামচ ডিটারজেন্ট পাউডার, ১ টেবিল চামচ সাদা ভিনেগার মিশিয়ে মিশ্রণে কাপড়টি ১৫ মিনিট ভিজিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে। রক্তের দাগ সাদা কাপড়ে রক্তের দাগ লাগে তবে লিক্যুইড ব্লিচ দিয়ে ধুতে হবে। ঘামের দাগ লাগলে .. গরমের সময় এই সমস্যাটা বেশি হয়। বিশেষ করে ঘামের দাগ শুকিয়ে সাদা হয়ে যায়। এক্ষেত্রে ঠান্ডা পানিতে ভিজিয়ে রেখে সাদা ভিনেগার দিয়ে ঘষতে হবে। কিছুক্ষণ পরে ডিটারজেন্ট দিয়ে হালকা ব্রাশ করে ধুয়ে ফেলতে হবে। আর জামা থেকে ঘামের গন্ধ দূর করার জন্য রঙবিহীন মাউথ ওয়াশ দিয়ে ঘামের জায়গাটা ধুয়ে দিতে হবে। কালির দাগ লাগলে কাপড়ের যে অংশটিতে বলপেনের কালির দাগ লেগেছে তাকে গ্লাসের ওপর টেনে মেলে দিয়ে ওপর থেকে অ্যালকোহল খুব আস্তে আস্তে ঢেলে দিতে হবে। এরপর পেট্রোলিয়াম জেলি দিয়ে ঘষে তুলতে হবে। এছাড়া ঠান্ডা পানিতে লেবুর রস ও ডিটারজেন্টের মিশ্রণে ৫ মিনিট রেখে ধুয়ে নিতে হবে। যদি সাদা কাপড়ে লাগা কালির দাগ শুকিয়ে যায় তবে ফুটন্ত গরম পানিতে ১ টেবিল চামচ লবণ বা লেবুর রস লাগিয়ে মিশ্রণটিতে কাপড় ভিজিয়ে লাখতে হবে। সাথে সাথে লাগা কালির দাগ উঠাতে দুধ বা ঘোলে কাপড়টি ধুয়ে নিতে হবে। তেল-ঘি’র দাগের জন্য প্রথমে জামা থেকে অতিরিক্ত তেল পেপার টাওয়াল বা টিস্যু পেপার দিয়ে চেপে চেপে শুষে নিতে হবে। এরপর বাসন ধোয়ার ডিটারজেন্ট অল্প করে মাখিয়ে নিতে হবে দাগের ওপর। ২ মিনিট পরে আরও ডিটারজেন্ট মাখিয়ে রেখে তারপর হালকা পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে হবে। ফলের রস বা ওয়াইনের দাগের জন্য দাগের ওপর লবণ ছড়িয়ে দিতে হবে। এরপর ঠান্ডা পানিতে কাপড় ভিজিয়ে হালকা গরম পানিতে ধুতে ফেলতে হবে। চুইংগামের দাগ লাগলে শক্ত গাম প্রথমেই নরম করে নিতে হবে বরফ ঘষে এবং ভোঁতা ছুরি দিয়ে ঘষে। এরপর সাবান পানিতে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রেখে ভাল করে ধুয়ে নিতে হবে।

স্বপ্নবাজ সৌরভ  একটি দিনের একটি বিকেল একটি ছাদের একটি কোণে, একটি কিশোর আকাশটাকে মাখছে গায়ে মাখছে মনে ।

মহাগুরু

কাপড়ে খাবার পড়ে তেল/ঝোলের  দাগ হয়ে গেলে দাগের জায়গাটিতে ট্যালকম পাউডার ছড়িয়ে দিন। ওই অংশটির ঠিক নিচের দিকে একটি ব্লটিং পেপার রাখুন। এবার আরও কিছুটা পাউডার নিয়ে দাগের জায়গাটিতে ভালো করে ঘষে লাগান। এতে দাগ অনেকটাই উঠে যাবে। বাকি হলুদ ভাব তোলার জন্য ডিটারজেন্ট পানিতে ঘন করে গুলে নিয়ে দাগের উপর মাখিয়ে কাপড়টা রোদে শুকাতে দিন। কিছু সময় পর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন, দাগ উঠে যাবে ।

সরকার মোমেনূর রহমান  ভালোবাসাকে ভালোবাসি

মহাগুরু

ঐ স্থানটি সাথে সাথেই ফেইসওয়াশ কিংবা সাবান (কাপড় ধোয়ার সাবান নয়) দিয়ে ব্রাশ দিয়ে ঘষে ধুয়ে ফেলুন !!!!!

নাজমুল ইসলাম  জীবনে ভুল বলে কিছু নেই সবই এক্সপেরিএঞ্চে

জ্ঞানী

ঐ স্থানটি সাথে সাথেই ফেইসওয়াশ কিংবা সাবান (কাপড় ধোয়ার সাবান নয়) দিয়ে ব্রাশ দিয়ে ঘষে ধুয়ে ফেলুন !!!!! তবে খেয়াল রাখতে হবে যেন কাপড় কাচার সময় অন্য কোথায় না লাগে 

মুগ্ধ শিশির  নীল পৃথিবীর টকটকে লাল গল্প....

গুরু

সাবান দিয়ে ধুয়ে ফেলুন । তবে,কখনোই কাপড় কাচা সাবান দিয়ে নয় ।

গাজী আজিজ  বাংলাদেশের বোকাসোকা একজন মানুষ। ।

মহাগুরু

সাদা কাপড়ে ঝোলের দাগ পড়লে লেবুর রস দিয়ে ভালোভাবে ঘষুন এরপর সাবান দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। কোন দাগ থাকবেনা।

MD.Masum khan  বদলে যান ,বদলে দিন .আপনি সুরু করুন দেখবেন সবাই সুরু করেছে

বিশারদ

সাদা কাপড়ে ঝোলের দাড় পড়লে পরিস্কার করার জন্য একটি লেবুর রস যেখানে ঝোলের দাগ পড়েছে সেখানে দিয় ভালো করে ঘষে, যেকোনো ডিটারজেন্ট পাউটার দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ঝোলের দাগ অনায়াসেই চলে যাবে।

রশিদা আফরোজ  আমিই আমার প্রিয়!

গুরু

বড়াপু আর বড়ভাবীর কাছ থেকে জেনে নিয়ে বলছি, ঝোলের দাগ তোলা জটিল না। সাবান দিয়ে ঘষে ধুয়ে নিলে দেখা যায় লালচে হয়ে আছে। কড়া রোদে শুকাতে দাও। শুকিয়ে গেলে দেখবে দাগ নেই। ব্লিচিং পাউডার কাপড়ের স্থায়ীত্ব কমিয়ে দেয়। এটা দুইভাবে ব্যবহার করার পদ্ধতি হলো: (১) ১ চা চামচ ব্লিচিং পাউডার আর আধা চা চামচ খাবার সোডা আধা কাপের চে' কম পানিতে মিশিয়ে চেকে নাও। দাগ যেখানে সেখানে লাগিয়ে ঘষে নিয়ে ফের ওখানে সাবান লাগিয়ে ধুয়ে নাও। (২) আঙুলের ডগায় ব্লিচিং পাউডার নিয়ে দাগের জায়গা ভিজিয়ে ঘষে নাও। তারপর সাবান লাগিয়ে ধুয়ে ফেলো। তবে এ পদ্ধতিতে একটা সমস্যা আছে, তা হলো ব্লিচিং পাউডার যদি মিহি না হয়, দানা থেকে যায়, তাহলে কাপড়ের যেখানে দানা লাগবে, ফুটো হয়ে যাবে। মনে রেখো, হাতের চামচা পাতলা/স্পর্শকাতর হলে গ্লাভস পরে নিতে হবে। সাবধানে ব্যবহার করতে হবে যেন চোখে না যায়।

ღღ..নাদিয়া..ღღ  শুন্যতায় স্বয়ংসম্পুর্ন আমি :)

গুরু

সুতির সাদা কাপড়ে যেকোনো খাবারের দাগ লাগলে লিকুইড ব্লিচ দিলে দাগটা উঠে যাবে।

মো:আ:মোতালিব  আসুন রাজনীতিকে ঘৃণা না করে,আমরা সকলে ...সকলের হাতে হাত রেখে সুস্থ রাজনীতি করি-

মহাগুরু

ধন্যবাদ............... দৈনন্দিন অসাবধানতার ফলে প্রায়ই কাপড়-চোপড়ে দাগ লেগে বিড়ম্বনায় পড়তে হয় আমাদের,কাপড়ের দাগ তোলার সঠিক উপায় জানা থাকলে ঝক্কি কমে যাবে অনেকটাই,জেনে নিন এ বিষয়ে বিস্তারিত টিপস কাপড়ে তেলজাতীয় দাগ লাগলে সে অংশে সাদা পাউডার ছড়িয়ে দিন,কিছুক্ষণ পর ধুয়ে ফেলুন লিপস্টিকের দাগ লাগলে সেখানে গ্লিসারিন অথবা পেট্রোলিয়াম জেলি ঘষে নিন রঙিন কাপড় ভেজানোর আগে পানিতে লবণ গুলিয়ে নেবেন,এতে রঙ ওঠার ভয় থাকবে না সুতি কাপড় পরিষ্কার করতে ক্লোরিন বা কাপড় কাচার সোডা ব্যবহার করতে পারেন যারা বেশি ঘামেন তারা কাপড় কাচার আগে পানিতে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রাখুন বলপয়েন্টের দাগ তুলতে মিথিলেটেড স্পিরিট ব্যবহার করতে পারেন কাঁচা মাছ,মাংস বা ডিমের দাগ লাগলে ঠাণ্ডা পানির মধ্যে লবণ দিয়ে ভিজিয়ে রাখুন কিছুক্ষণ,তারপর সাবান ঘষে ধুয়ে ফেলুন দীর্ঘদিনের পুরোনো দাগ তুলতে ভিনেগার বা লেবু দিয়ে ঘষে তারপর ডিটারজেন্ট দিয়ে পরিষ্কার করুন জামাকাপড়ে কাদার দাগ লাগলে সঙ্গে সঙ্গে পানি লাগাবেন না,কাদা শুকিয়ে গেলে ডিটারজেন্ট দিয়ে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রেখে পরিষ্কার করুন শার্টের কলার বা হাতা পরিষ্কার করার সময় ব্রাশ ব্যবহার করতে পারেন জামাকাপড় থেকে তেল বা ঘিয়ের দাগ তুলতে প্রথমেই ওই দাগ লাগা অংশে ট্যালকম পাউডার অথবা চক ঘষে নিন,তারপর ওপরে ও নিচে দুটি ব্লুটিং পেপার ধরে অল্প গরম ইস্ত্রি চেপে ধরুন,এতে তেল-ঘি ব্লুটিং পেপারে উঠে আসবে সাদা সুতি কাপড় গরম পানি আর সাবান দিয়ে পরিষ্কার করলে হলদেটে ভাব চলে যাবে,তারপর নীল দিয়ে কড়া রোদে শুকিয়ে নিন কাপড়ে চা বা কফির দাগ লাগলে সঙ্গে সঙ্গে গরম পানি ঢালুন,দাগ বসে গেলে বোরিক পাউডার ও গরম পানির মধ্যে ডুবিয়ে রাখুন,তারপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন জামাকাপড়ে রক্তের দাগ লাগলে কখনো গরম পানি দিয়ে ধোবেন না,স্বাভাবিক তাপমাত্রার পানি দিয়ে পরিষ্কার করুন,রক্তের দাগ যদি শুকিয়ে যায় তবে লবণ মেশানো পানিতে ঘণ্টাখানেক ভিজিয়ে রাখুন...............................

সাবান বা লেবু দিয়ে ভালো করে দোয়ে নিতে হবে তার পর দাগ উঠে যাবে।

Sboy Showrav  

গুণী

সিরকা দিলে সাথে সাথে উঠে যায়

Md Irfan Ahmed  

গুণী

আপনার কাপড়ে যদি,নিজের আসাবধানতা কারনে কিছু ঝোলের দাগ,রক্তের দাগ,অথবা কোন ময়লা,যা সাধারন কোন পাউডার,অথবা হোইল পাউটার,সারফেকসেল,বিভিন্ন ধরনের ডিটারজিন দিয়ে যদি পরিষ্কার না হয়।তা হলে বাজার এক ধরনের সাদা পাউডার যা (বিলিসিন) নামে পরিচিত,,সাদা কপরের জন্য অনেক ভালো।আপনি ঐ বিলিসিন এনে,,৪ লিটারপানিতে ভিজিয়ে রেখে,,আপনার জামাটা সেইখানে ভিজিয়ে রাখতে পারেন,এবং প্রায় ১৫ মিনিট ভিজিয়ে রাখার পর দেখবেন,,আপনার জামায় কোন দাগনেই,,একদম পরিষ্কার হয়ে যাবে। সুতরাং আপনি বিলিসিন নামক পাউটারটা ব্যবহার করতে পারেন।


অথবা,